বৃহস্পতিবার, ২৪শে জুন, ২০২১ ইং, ১০ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৪ই জিলক্বদ, ১৪৪২ হিজরী
বৃহস্পতিবার, ২৪শে জুন, ২০২১ ইং

শরীয়তপুরে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় যুবক কারাগারে

শরীয়তপুরে কিশোরী ধর্ষণ মামলায় যুবক কারাগারে

শরীয়তপুর সদর উপজেলায় ১৭ বছররের এক কিশোরীকে বিয়ের প্রলোভনে একাধিকবার ধর্ষণ মামলায় আবুল হোসেন (২৫) নামে এক যুবককে আটকের পর জেল হাজতে পাঠিয়েছে পুলিশ। বুধবার (১৭ মার্চ) বিকাল ৩ টার দিকে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।

আবুল হোসেন সদর উপজেলার শৌলপাড়া ইউনিয়নের কুন্দরিয়া গ্রামের আব্দুল জব্বার ভূইয়ার ছেলে। সে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে মাস্টার্স ডিগ্রী পাশ করেছেন এবং ৪১তম বিসিএস প্রিলিমিনারী পরীক্ষায় তার অংশ নেয়ার কথা ছিল।

মামলার এজহার ও পুলিশ সুত্রে জানা গেছে, দরিদ্র পরিবারের প্রতিবেশী এক কিশোরীকে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে প্রায় ছয়মাস যাবত তার সাথে সম্পর্ক গড়ে তোলে আবুল হোসেন। পরে কৌশলে একাধিকবার মেয়েটিকে ধর্ষণ করে আবুল। এতে গর্ভবতী হয়ে পড়লে মেয়েটি আবুলকে বিয়ের জন্য চাপ দেয়। কিন্তু আবুল বিয়ে না করে মেয়েটিকে ওষুধ খাইয়ে গর্ভ নষ্ট করে ফেলে।

গত ১৪ মার্চ রাতে বিয়ের কথা বলে বাড়িতে ডেকে নিয়ে মেয়েটিকে আবারও ধর্ষণ করে আবুল। পরে মেয়েটি এ ঘটনা তার পরিবারকে জানায়। মেয়ের বাবার অভিযোগের ভিত্তিতে মঙ্গলবার দিনগত রাত ১২ টার দিকে আবুলকে পালং মডেল থানা পুলিশ আটক এবং মেয়েটিকে হেফাজতে নেয়।

বুধবার (১৭ মার্চ) দুপুরে থানায় ধর্ষণ মামলা রেকর্ডের পর আবুলকে জেল হাজতে পাঠায় পুলিশ।

পালং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আসলাম উদ্দিন বলেন, ধর্ষণ মামলায় আবুল হোসেন নামে এক যুবককে আটকের পর জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। ভিকটিমকে হেফাজতে নিয়ে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ব্যাপারে প্রয়োজনীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।