Tuesday 25th June 2024
Tuesday 25th June 2024

Notice: Undefined index: top-menu-onoff-sm in /home/hongkarc/rudrabarta.net/wp-content/themes/newsuncode/lib/part/top-part.php on line 67

শরীয়তপুরে প্রতিপক্ষের হামলায় স্কুলছাত্রীসহ আহত ৫

শরীয়তপুরে প্রতিপক্ষের হামলায় স্কুলছাত্রীসহ আহত ৫

শরীয়তপুর সদর উপজেলার রুদ্রকর গ্রামে জমি সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় স্কুলছাত্রীসহ ৫ জন আহত হওয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার (১৪ ডিসেম্বর) বেলা ১১ টার সময় এ হামলার ঘটনা ঘটে।
আহতদের মধ্যে আমির শেখ (৩৫), আলতাফ শেখ (২২), শিমুলী আক্তারকে (১৪) শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। বাকি তাজেলা বেগম ও বিউটি বেগমে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়েছে।
এ ঘটনায় পালং মডেল থানায় মমামলা দায়ের করা হয়েছে।
মামলার এজহার ও অভিযোগ সুত্রে জানা গেছে, শরীয়তপুর সদর থানার ৯৯ নং রুদ্রকর মৌজায় ৫৯৪ নং খতিয়ানের এসএ ৮৭০ ও বিআরএস ৮৪৩ নং দাগে ১২ শতাংশ জমিতে দীর্ঘদিন যাবৎ ওই গ্রামের মৃত মোবারক শেখের ছেলে হোসেন শেখ, আমির শেখ মেয়ে তাজেলা বেগম বাড়িঘর করে ভোগ দখল করে আসছেন। এটা তাদের পৈত্রিক সম্পত্তি। ওই সম্পত্তি একই এলাকার ওয়াহাব আলী সরদারের ছেলে আবু আলেম সরদার, আজহার ঢালীর ছেলে সুজন ঢালী ও মিয়াচান সরদারের ছেলে আল আমিন সরদার দীর্ঘদিন যাবত জোরপূর্বক বেআইনী ভাবে দখল করার পায়তারা করে আসছে। এ নিয়ে হোসেন শেখ এলাকার মুরব্বীদের কাছে ও ভূমি অফিসে অভিযোগ করলেও প্রতিপক্ষ কোন মিমাংসায় আসেনি। শুক্রবার (১৪ ডিসেম্বর) বেলা ১১টার সময় আবু আলেম সরদার, সুজন ঢালী ও আল আমিন সরদার লোকজন নিয়ে ওই জমিতে বেড়া নির্মান করে দখলে নেওয়ার চেষ্টা করে। এসময় আমির শেখ ও তাজেলা বেগম বাধা দিতে গেলে দখলকারীরা ক্ষিপ্ত হয়ে তাদের ওপর হামলা চালায়। হামলায় হোসেন শেখের স্ত্রী বিউটি বেগম, ছেলে আলতাফ শেখ, স্কুল পড়ুয়া মেয়ে শিমুলী আক্তার (১৪), ভাই আমির শেখ ও বোন তাজেলা বেগম আহত হয়। পরে এদেরকে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে নিয়ে ভর্তি করা হয়। হামলার খবর পেয়ে পালং মডেল থানার পুলিশ হাসপাতালে গিয়ে আহতদের খোজ খবর নেয়। এ ব্যাপারে হোসেন শেখ বাদী হয়ে পালং মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।
এ ব্যাপারে অভিযুক্তদের সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাদের কাউকে পাওয়া যায়নি।
পালং মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান বলেন, হামলার খবর পেয়ে পুলিশ আহতদের খোঁজ খবর নিয়েছে। এ ব্যাপারে একটি মামলা হয়েছে। দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।