সোমবার, ১লা জুন, ২০২০ ইং, ১৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৮ই শাওয়াল, ১৪৪১ হিজরী
সোমবার, ১লা জুন, ২০২০ ইং

শরীয়তপুর এর ফার্মেসি গুলোতে মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধের ছড়াছড়ি

শরীয়তপুর এর ফার্মেসি গুলোতে মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধের ছড়াছড়ি
শরীয়তপুর এর ফার্মেসি গুলোতে মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধের ছড়াছড়ি

শরীয়তপুর এর ফার্মেসি গুলো তদারকি করতে বৃহসপতিবার ২১মার্চ জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর, শরীয়তপুর জেলা কার্যালয় এর এক বিশেষ অভিযান পরিচালিত হয়। অভিযানে শহরের চৌরঙ্গী মোড় এলাকা থেকে শুরু হয়ে হাসপাতাল রোড পর্যন্ত বেশ কয়েকটি ফার্মেসি পরিদর্শন করা হয়। এসময় চৌরংগী মোড় এলাকাস্থ রাজ্জাক ফার্মেসি ও সাফা ড্রাগ হাউজ এবং হাসপাতাল রোডে জনসেবা ফার্মেসি তে প্রচুর মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ পাওয়া যায়। এমনকি ২০১৬ সালে মেয়াদ উত্তীর্ণ হয়ে যাওয়া ঔষধও পাওয়া যায়। অন্যদিকে সাফা ড্রাগ হাউজ এর ফ্রিজে পাওয়া যায় জীবন রক্ষাকারী ইনসুলিন সহ বেশ কিছু মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ। মেয়াদ উত্তীর্ণ এসব ঔষধ সংরক্ষণ ও প্রদর্শন করায় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইন, ২০০৯ এর ৫১ ধারায় রাজ্জাক ফার্মেসি কে ৫হাজার টাকা, সাফা ড্রাগ হাউজ কে ৭হাজার ও জনসেবা ফার্মেসি কে ৩ হাজার টাকা সহ মোট ১৫হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। যে সকল ফার্মেসি তে মেয়াদ উত্তীর্ণ ঔষধ পাওয়া যায়নি তাদের ধন্যবাদ জানানো হয়। সকাল ১১ টা থেকে দুপুর ২ টা পর্যন্ত পরিচালিত এই অভিযানে সহযোগিতা করেন শরীয়তপুর ঔষধ ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি মোঃ সিরাজুল ইসলাম, ক্যাব – শরীয়তপুর এর সভাপতি মোঃ বিল্লাল হোসেন খান ও জেলা পুলিশ এর একটি টিম। জনস্বার্থে এ অভিযান অব্যাহত থাকবে। ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদপ্তর শরীয়তপুর জেলা কার্যালয় এর সহকারী পরিচালক সুজন কাজীর নেতৃত্বে পরিচালিত হয়।