Sunday 21st July 2024
Sunday 21st July 2024

Notice: Undefined index: top-menu-onoff-sm in /home/hongkarc/rudrabarta.net/wp-content/themes/newsuncode/lib/part/top-part.php on line 67

শরীয়তপুর সমাজসেবা কার্যালয়ের ডিডি কামাল হোসেনের প্রচেষ্টায় প্রতিবন্ধী শিশু ফিরে পেলো তার পরিবার

শরীয়তপুর সমাজসেবা কার্যালয়ের ডিডি কামাল হোসেনের প্রচেষ্টায় প্রতিবন্ধী শিশু ফিরে পেলো তার পরিবার

শরীয়তপুর সমাজ সেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মো. কামাল হোসেনের প্রচেষ্টায় বুদ্ধি প্রতিবন্ধী শিশু ইউনুস নিখোঁজের বিশ দিন পর তার পরিবারকে ফিরে পেয়েছে। বৃহস্পতিবার (১৮ এপ্রিল) দুপুরে ইউনুস তার পিতামাতাকে ফিরে পান। ইউনুস বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার বাইশারী গ্রামের জয়নাল বেপারীর ছেলে।
শরীয়তপুর সমাজ সেবা কার্যালয় সুত্রে জানা গেছে, গত ২৬ মার্চ বেলা সাড়ে ১১টার দিকে নিজ গ্রাম বাইশারী থেকে ঘুরতে বের হয়ে নিখোঁজ হয় বুদ্ধি প্রতিবন্ধী ইউনুস (১০)। এরপর পরিবারের লোকজন ইউনুসকে অনেক খোঁজাখুজি করে না পেয়ে স্থানীয় থানায় জানান। এছাড়া স্থানীয়ভাবে হারানো বিজ্ঞপ্তী দেওয়া হয়। কিন্তু কোথাও ইউনুসকে খুজে পাওয়া যাচ্ছিলনা। নিখোঁজের বিশ দিন পর গত ১৪ এপ্রিল বিকাল ৫টার দিকে শরীয়তপুরের জাজিরা উপজেলার পদ্মাসেতু প্রকল্প এলাকায় ইউনুসকে এলোমেলো ঘুরতে দেখে এবং পরিচয় বলতে না পাড়ায় স্থানীয়রা জাজিরা থানায় খবর দেয়। খবর পেয়ে জাজিরা থানা পুলিশ শিশুটিকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায় এবং এ ব্যাপারে ১৫ এপ্রিল জাজিরা থানায় একটি সাধারণ ডাইরী (জিডি) করা হয়। ১৬ এপ্রিল জাজিরা থানা পুলিশ ইউনুসকে শরীয়তপুর শিশু আদালতে হাজির করলে আদালত শিশুটিকে নিরাপদ হেফাজতে রাখার জন্য শরীয়তপুর সমাজসেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মো. কামাল হোসেনের কাছে প্রেরণ করেন। উপ-পরিচালক মো. কামাল হোসেন প্রতিবন্ধী শিশুটিকে পেয়ে কৌশল ও বুদ্ধিমত্তা দিয়ে প্রচেষ্টা চালিয়ে এক দিনের মধ্যে শিশুটির ঠিকানা বের করে ফেলে। পরে শিশুটির পরিবারের সাথে যোগাযোগ করলে শিশুর বাবা জয়নাল বেপারী, মা পিয়ারা বেগম ও চাচা নুরুল হক বেপারী বরিশালের বানারীপাড়া থেকে রওয়ানা হয়ে বৃহস্পতিবার (১৮ এপ্রিল) সকালে শরীয়তপুর সমাজসেবা কার্যালয়ে এসে পৌছায়। পরে শরীয়তপুর সমাজসেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মো. কামাল হোসেন প্রতিবন্ধী শিশু ইউনুসকে তার পিতামাতার কাছে হস্তান্তরের জন্য অভিভাবকসহ শিশুটিকে বিজ্ঞ আদালতে উপস্থাপন করেন। আদালত নিশ্চিত হয়ে শিশুটিকে তার পিতা মাতার কাছে হস্তান্তর করে।
এ ব্যাপারে শরীয়তপুর সমাজসেবা কার্যালয়ের উপ-পরিচালক মো. কামাল হোসেন বলেন, শিশুটিকে ঠিকানা জিজ্ঞাসা করলে সে শুধু বাইশারী বলতে পারে। আমি বরিশাল জেলার লোক হওয়ায় এলাকাটি চিনতে পারি। স্থানীয় সমাজসেবীদের সহায়তায় বিভিন্ন ভাবে যোগাযোগ করে এবং বরিশালের বানারীড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তার সহযোগিতায় শিশুটির পিতামার সাথে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়। অল্প সময়ের মধ্যে শিশুটিকে তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করতে পেরে ভালো লাগছে।
শিশু ইউনুসের বাবা জয়নাল বেপারী ও পিয়ারা বেগম বলেন, ইউনুসকে আমরা অনেক খোঁজাখুজি করেছি। পুলিশকেও বলেছি। কিন্তু কোথাও খুঁজে পাইনী। শরীয়তপুর সমাজসেবা স্যারের কারণে আমরা আমাদের সন্তানকে খুঁজে পেয়েছি। ইউনুসকে পেয়ে আমরা অনেক আনন্দিত।