বৃহস্পতিবার, ২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ ইং, ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩রা রবিউল-আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরী
বৃহস্পতিবার, ২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ ইং

ভেদরগঞ্জের পাপরাইল গ্রামে হামলার পরে লুটপাটের অভিযোগ

ভেদরগঞ্জের পাপরাইল গ্রামে হামলার পরে লুটপাটের অভিযোগ

শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলায় জমি সংক্রান্ত বিরোধের জেরে প্রতিপক্ষের ওপর হামলার পরে বাড়িতে হামলা চালিয়ে লুটপাটের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় শরীয়তপুর চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত শনিবার (৮ জুন) উপজেলার পাপরাইল গ্রামে এই হামলা ও লুটপাটের ঘটনা ঘটে বলে মামলায় উল্লেখ করা হয়েছে।
মামলা সুত্রে জানা গেছে, পাপলাইল গ্রামের মৃত মহিজদ্দিন সরদারের ছেলে নাসির সররদার ও মোসলেম সরদারের সাথে একই গ্রামের মৃত লাল মিয়া সরদারের ছেলে সোবহান সরদারের জমি সংক্রান্ত বিরোধ রয়েছে।
এই বিরোধের জের ধরে গত শনিবার (৮ জুন) দুপুর ২টার দিকে বুড়িরহাট বাজার থেকে বাড়ি ফেরার পথে সোবহান সরদার তার লোকজন নিয়ে নাসির সরদারের উপর হামলা করে গুরুতর জখম করে। আহত নাসির সরদারকে উদ্ধার করে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করার পর ভেরদগঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের করলে বিকেলে আবার সোবহান সরদার তার লোকজন নিয়ে নাসির সরদারের বাড়িতে হামলা চালিয়ে ভাংচুর ও লুটপাট করে। হামলাকারীরা ঘরের দরজা জানালা, খাট, আলমারী, সুকেজ, পানির ড্রাম সহ ঘরের সকল আসবাবপত্র কুপিয়ে প্রায় দুই লাখ টাকার ক্ষতি করে। এ ছাড়া ঘরের আলমারী ভেঙ্গে ৮ ভরি স্বর্ণালংকার ও দেড় লাখ টাকা নিয়ে যায়। হামলাকারী চলে যাওয়ার সময় হুমকি দিয়ে বলে যায়, ‘এ বিষয় নিয়ে যদি আবার মামলা করিস তাহলে তোদের জানে শেষ করে ফেলবো।’ এ ঘটনায় নাসির সরদারের স্ত্রী পাপিয়া সুলতানা মুনা বাদী হয়ে শরীয়তপুর চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা দায়ের করেন। মামলায় সোবহান সরদার এবং জুলহাস সরদারের ছেলে রাজু সরদার ও জাকির সরদার সহ ১১ জনকে আসামী করা হয়েছে।


error: Content is protected !!