বৃহস্পতিবার, ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং, ৯ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৭ই সফর, ১৪৪২ হিজরী
বৃহস্পতিবার, ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং

ডামুড্যায় বিদ্যুতের ট্রান্সমিটার চুরির সময় চোরকে গণপিটুনি

ডামুড্যায় বিদ্যুতের ট্রান্সমিটার চুরির সময় চোরকে গণপিটুনি
ডামুড্যায় বিদ্যুতের ট্রান্সমিটার চুরির সময় চোরকে গণপিটুনি

শরীয়তপুর জেলার ডামুড্যা উপজেলার কনেশ্বর ইউনিয়নের তিলই গ্রামস্থ পল্লী বিদ্যুতের ট্রান্সমিটার চুরির সময় আন্তঃজেলা চোরদলের ১ সদস্যকে আটক করে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে দিয়েছে স্থানীয় জনতা।
পরে পুলিশ তাদের কাছ থেকে ট্রান্সমিটার চুরির বিভিন্ন যন্ত্রপাতি ও ১৫ কেভিএ ট্রান্সফরমার ভিতরে থাকা ৩ টি স্টিলের কোর, ২ টি ছোট পাত, ১ টি ৫০ ফুট সুতার রশি উদ্ধার করে।
গ্রেফতারকৃত চোর শরীয়তপুর জেলার ডামুড্যা উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের ভেসালিয়ার গ্রামের আবুল কালাম মাদবরের ছেলে দিদার মাদবর (২৬)।
ডামুড্যা থানার ওসি মোঃ নজরুল ইসলাম বলেন, গ্রেফতারকৃত চোরেরা দীর্ঘদিন যাবত শরীয়তপুর জেলার বিভিন্ন এলকায় ট্রান্সমিটার চুরি করে আসছিল।
তিনি জানান, বুধবার ভোর ৪ টায় ডামুড্যা উপজেলার কনেশ্বর ইউনিয়নে তিলই এলাকার জনৈক আলী মুন্সি এর বাড়ির সামনে মসজিদ সংলগ্ন পূর্ব-উত্তর পাশে পল্লী বিদ্যুতের একটি ট্রান্সমিটার চুরি করে নিয়ে যাচ্ছিল গ্রেপ্তারকৃত চোর ও পালিয়ে যাওয়া তার সহযোগিরা। এ সময় স্থানীয় জনতা দিদার মাদবরকে ধাওয়া করে তিলই এলাকা থেকে ধরে ফেলে।
পরে ডামুড্যা থানায় খবর দিলে পুলিশ তাদের কাছ থেকে ট্রান্সমিটার উদ্ধার এবং চুরিকাজে ব্যবহৃত ট্রান্সমিটার খোলার বিভিন্ন যন্ত্রপাতি আটক করে। পরে চোরচক্রের অন্য সদস্যদের ধরতে চোরকে জিজ্ঞাসাবাদ করছিল পুলিশ। একইসঙ্গে তাদের বিরুদ্ধে মামলাও হয়।
পালিয়ে যাওয়া চোর সদস্যরা হলেন, শরীয়তপুর জেলার সদর উপজেলার চর পাতাং গ্রামের সজিব (৩৫), জেলার সদর উপজেলার চর পাতাং গ্রামের রাসেল (৩০), জেলার সদর উপজেলার চর পাতাং গ্রামের আবু সিদ্দিক মোল্লা। উভয়েরই পিতা অজ্ঞাত।