শনিবার, ৩০শে মে, ২০২০ ইং, ১৬ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৭ই শাওয়াল, ১৪৪১ হিজরী
শনিবার, ৩০শে মে, ২০২০ ইং

ডামুড্যায় সরিষা খেতে গৃহবধুর লাশ

ডামুড্যায় সরিষা খেতে গৃহবধুর লাশ
ডামুড্যায় সরিষা খেতে গৃহবধুর লাশ

শরীয়তপুরের ডামুড্যা উপজেলার পূর্ব ডামুড্যা ইউনিয়নের চরভয়রা উকিল পাড়া গ্রামের সরিষা ক্ষেত থেকে হাওয়া বেগম (৪০) নামে এক গৃহবধুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
সোমবার বিকেলে মরদেহটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য শরীয়তপুর সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।
হাওয়া বেগম উপজেলার পূর্ব ডামুড্যা ইউনিয়নের চর ভয়রা উকিল পাড়া গ্রামের রং মিস্ত্রি খোকন উকিলের স্ত্রী। তার চার মেয়ে ও এক ছেলে।
হাওয়া বেগমের মেয়ে ময়না আক্তার (২০) অভিযোগ করে বলেন, আমার মাকে নির্যাতন করে মারা হয়েছে। মা এর মুখে, বুকে ও গলায় নির্যাতনের আঘাত আছে। আমার মাকে যারা হত্যা করেছে, তাদের গ্রেফতার করে বিচার করা হোক।
পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, গত রোববার রাত ৮ টার দিকে হাওয়া বেগম পাশের ঘড়ে মোবাইল চার্জ দেওয়ার জন্য বের হলে আর ঘরে ফিরে না। পরে পরিবার অনেক খোঁজাখুজি করেও তাকে পায়নি। পরদিন সোমবার বিকেলে বাড়ির পশ্চিম পাশের সরিষা ক্ষেতে হাওয়ার মরদেহ পরে থাকতে দেখে স্থানীয়রা থানা পুলিশে খবর দেন। খবর পেয়ে পুলিশ হাওয়ার মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠায়।
গোসাইরহাট সার্কেলের সহকারী পুলিশ সুপার মোহাইমিনুল ইসলাম বলেন, মরদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে। ময়না তদন্তের রিপোর্ট পেলে বলা যাবে হাওয়ার সাথে কি হয়েছিল।