বৃহস্পতিবার, ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং, ৯ই আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৭ই সফর, ১৪৪২ হিজরী
বৃহস্পতিবার, ২৪শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং

নড়িয়া ও জাজিরায় করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ

নড়িয়া ও জাজিরায় করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ
নড়িয়া ও জাজিরায় করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ

“মুজিব বর্ষের অঙ্গীকার, পুলিশ হবে জনতার” এ প্রতিপাদ্য এবং “পরিচিত বা অপরিচিত ব্যক্তির সাথে হাত মেলানো বা আলিঙ্গন করা থেকে বিরত থাকুন, আক্রান্ত ব্যক্তি থেকে নিরাপদ দূরত্বে থাকুন, সাবান ও পানি দিয়ে ঘন ঘন হাত পরিষ্কার করুন, অপরিষ্কার হাত দিয়ে চোখ, নাক ও মুখ স্পর্শ করা থেকে বিরত থাকুন” এ শ্লোগানকে সামনে শরীয়তপুর জেলা পুলিশের উদ্যোগে করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ করা হয়।
রবিবার (১৫ মার্চ) সকাল সাড়ে ১০ টা থেকে নড়িয়া থানা ও জাজিরা থানা এলাকার বিভিন্ন যানবাহনের চালক, যাত্রী, স্কুলের ছাত্র-ছাত্রীদের এবং বিভিন্ন দোকানে ও রাস্তা দিয়ে হেঁটে যাওয়া জনসাধারণ সহ বিভিন্ন ব্যক্তিদের মাঝে লিফলেট বিতরণ করেন পুলিশ সুপার এস. এম. আশরাফুজ্জামান।
এ সময় উপস্থিত ছিলেন নড়িয়া উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এ. কে. এম. ইসমাইল হক, জাজিরা উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ জাহিদুল ইসলাম, জাজিরা থানা অফিসার ইনচার্জ আজহারুল ইসলাম সরকার, পিপিএম, নড়িয়া উপজেলা আওয়ামীলীগ সভাপতি আলহাজ্ব হাচান আলী রাড়ী, সাধারণ সম্পাদক হাচানুজ্জামান খোকন, নড়িয়া থানা ওসি মো: হাফিজুর রহমান, ভোজেশ্বর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো: নুরুল হক বেপারী, সাবেক চেয়ারম্যান মাসুক আলী দেওয়ান, নড়িয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক শহীদুল ইসলাম শিকদারসহ স্থানীয় জনসাধারণ ও জেলা পুলিশের কর্মকর্তা-কর্মচারী, সাংবাদিক প্রমূখ।
লিফলেট বিতরণকালে সাংবাদিকদের জিজ্ঞাসাবাদে পুলিশ সুপার বলেন, সারা বিশ্বের অধিকাংশ দেশ করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত। বিশ্বের বিভিন্ন দেশে শরীয়তপুরের লোকজন বেশি থাকে। গত ১১ ফেব্রুয়ারি থেকে চলতি মাসের ১১ ই মার্চ পর্যন্ত শরীয়তপুরে প্রায় ৫ হাজার লোক বিদেশ থেকে দেশে ফিরেছে। তাদের প্রত্যেকের বাসায় বাসায় আমরা যাচ্ছি এবং তাদের করোনা ভাইরাস প্রতিরোধে সচেতন করছি। ১১ ই মার্চের পরে বিদেশ থেকে যারা ফিরেছে এবং ফিরবে তাদের জন্য আমাদের লিফলেট-এর মাধ্যমে এই সচেতনতামূলক নির্দেশনা অব্যাহত থাকবে। এছাড়া তিনি বলেন আমরা সকল দপ্তরের কর্ম-কর্তাদের সাথে নিয়ে প্রতিটি উপজেলায় জেলা পুলিশের উদ্যোগে এ সচেতনতামূলক লিফলেট বিতরণ অব্যাহত রাখবো। যাতে করে প্রতিটি ওয়ার্ডের-ইউনিয়নের-দপ্তরের মানুষ করোনা ভাইরাস সম্পর্কে সচেতন হয়।