শুক্রবার, ১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ ইং, ২রা আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১০ই সফর, ১৪৪৩ হিজরী
শুক্রবার, ১৭ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ ইং

পদ্মার পানি শরীয়তপুরে বিপৎসীমার ৩৫ সে.মি ওপর দিয়ে প্রবাহিত

পদ্মার পানি শরীয়তপুরে বিপৎসীমার ৩৫ সে.মি ওপর দিয়ে প্রবাহিত

শরীয়তপুরে সুরেশ্বর পয়েন্টে পদ্মা নদীর পানি বিপৎসীমার ৩৫ সে.মি ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। পানি বেড়ে যাওয়ায় নদীর তীরবর্তী গ্রামের নিচু স্থান তলিয়ে গেছে।

শরীয়তপুর পাউবো ও স্থানীয় সূত্র জানায়, কয়েকদিন যাবৎ পদ্মা নদীর পানি সুরেশ্বর পয়েন্টে বিপৎসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হয়। এরপর থেকে প্রতিদিন বিপদসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। শনিবার নড়িয়া উপজেলার সুরেশ্বর পয়েন্টে পদ্মা নদীর পানি বিপৎসীমার ৩৫ সে.মি ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

নড়িয়ার কিছু নিচু এলাকায় তীর উপচে লোকালয়ে পানি প্রবেশ করতে শুরু করেছে। এর প্রভাবে কীর্তিনাশা নদীতেও পানি বেড়েছে। পানি বৃদ্ধি পাওয়ায় পদ্মা নদীতে স্রোত বেড়েছে। স্রোতের কারণে জাজিরার পদ্মা নদীর তীরবর্তী এলাকায় ও কীর্তিনাশার বিভিন্ন স্থানে ভাঙন দেখা দিয়েছে। নদীর তীরের খাল, ডোবা, বাঁওর ও ফসলি জমি পানিতে তলিয়ে গেছে।

শরীয়তপুরের পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী এস এম আহসান হাবীব বলেন, ভাঙন রোধে জাজিরার ৩৭টি স্থানে, নড়িয়ার ১২টি, ভেদরগঞ্জের ২২টি, গোসাইরহাটের ১৪টি ও সদর উপজেলার কীর্তিনাশা নদীর ১৫টি স্থানে বালু ভর্তি জিওব্যাগ ও জিওটিউব ফেলা হচ্ছে।