সোমবার, ১লা জুন, ২০২০ ইং, ১৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৯ই শাওয়াল, ১৪৪১ হিজরী
সোমবার, ১লা জুন, ২০২০ ইং

শরীয়তপুরে ৯০ বেদে ও হিজড়াদের মানবিক সহায়তা প্রদান করলেন জেলা প্রশাসক

শরীয়তপুরে ৯০ বেদে ও হিজড়াদের মানবিক সহায়তা প্রদান করলেন জেলা প্রশাসক
শরীয়তপুরে ৯০ বেদে ও হিজড়াদের মানবিক সহায়তা প্রদান করলেন জেলা প্রশাসক

শরীয়তপুর জেলায় করোনা ভাইরাসের বিস্তৃতিরোধে চলমান পরিস্থিতিতে বেসরকারী ব্যক্তি/প্রতিষ্ঠানের অনুদান হতে প্রান্তিক অসহায় মানুষের মাঝে মানবিক সহায়তা প্রদান করা হয়েছে।
সোমবার (৩০ মার্চ) শরীয়তপুর জেলা প্রশাসনের আয়োজনে নড়িয়া উপজেলার ভোজেশ্বর নিবাসী স্পেনের বার্সেলোনার চেম্বার্স অব কমার্সের সভাপতি প্রবাসী সোহেল হাওলাদারের অনুদান হতে প্রান্তিক শ্রমজীবী অসহায় ডোমসার ইউনিয়নের মুন্সিরহাটের ৫০ জন, আঙ্গারিয়া ইউনিয়নের নদীরপাড়ের ২৮ জন বেদে পল্লী ও শরীয়তপুর পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের ১২ জন হিজড়াদের মধ্যে এ মানবিক সহায়তার ১০ কেজি চাল, ৫ কেজি আলু, ১ কেজি মুসুর ডাল, ১ কেজি লবণ, ১ কেজি পিঁয়াজ, ২৫০ গ্রাম রসুন, সয়াবিন তেল ও এন্টিসেপটিক সাবান প্রদান করেন জেলা প্রশাসক কাজী আবু তাহের। নির্দিষ্ট সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে জেলা প্রশাসক এ অনুদান প্রদান করেন।
এ সহায়তা প্রদানের সময় সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো: মাহাবুর রহমান শেখ, সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার(ভূমি) ফাতেমা খাতুন, জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সহকারী কমিশনার মো: পারভেজ, ডোমসার ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মো: চানমিয়া মাদবর ও ডোমসার ইউপি মেম্বারসহ প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন
এ সময় জেলা প্রশাসক কাজী আবু তাহের বলেন, আমাকে নড়িয়া উপজেলার ভোজেশ্বর নিবাসী সোহেল হাওলাদার নামে স্পেন প্রবাসী ফোনে আমাকে জানালেন যে, করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে আমি আপনার মাধ্যমে প্রান্তিক অসহায়দের মাঝে কিছু অনুদান দিতে চাই। আপনি কি নিবেন? তখন আমি বললাম আপনি যদি এ মুহূর্তে অনুদান দিতে চান নেয়া যাবে। তখন সোহেল হাওলাদারের পিতা শাহজাহান হাওলাদারের মাধ্যমে ২ লক্ষ টাকা আমার হাতে তুলে দেন। আমি সেই অনুদানের টাকা দিয়ে ডোমসার ইউনিয়নের মুন্সিরহাটের ৫০ জন, আঙ্গারিয়া ইউনিয়নের নদীরপাড়ের ২৮ জন বেদে পল্লী ও শরীয়তপুর পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের ১২ জন হিজড়াদের মধ্েয চাল, আলু, তেল, লবণসহ অন্যান্য খাদ্যসামগ্রী তাদের হাতে পৌঁছে দেই। অনুদানের আরও টাকা আছে, তা দিয়ে গরীব ও শ্রমজীবী বসে থাকা অসহায়দের মাঝে বিতরণ করা হবে। জেলা প্রশাসক আরও বলেন, সোহেল হাওলাদারের মতো আরও কেউ যদি জেলা প্রশসকের মাধ্যমে অনুদান দিতে চায় তা আমরা তা প্রান্তিক শ্রমজীবী বসে থাকা অসহায়দের নিকট পৌঁছে দিব। এছাড়া তিনি করোনা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে যারা সরকারি বিধিনিষেধ মেনে চলবেন, তাদের বাড়িতে অনুদান পৌঁছে দেওয়ার প্রতিশ্রুতি ব্যক্ত করেন।