শুক্রবার, ৫ই মার্চ, ২০২১ ইং, ২০শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২০শে রজব, ১৪৪২ হিজরী
শুক্রবার, ৫ই মার্চ, ২০২১ ইং

শরীয়তপুরে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দোকানঘর দখলের পায়তারা

শরীয়তপুরে আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দোকানঘর দখলের পায়তারা

আদালতের চিরস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে শরীয়তপুর শহরের আংগারিয়া বাজারে একটি দোকানঘর দখলের পায়তারার অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় ব্যবসায়ী মোদাচ্ছের সরদারের বিরুদ্ধে। মঙ্গলবার (১২ ডিসেম্বর) সন্ধ্যা ৭ টার দিকে আংগারিয়া বাজারের (মাছ বাজারের সামনে) এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় একটি মামলা রয়েছে।

বাজার ব্যবসায়ী ও মামলা সূত্রে জানায়, শরীয়তপুর সদরের ৮৬ নং মৌজার বিআরএস ৪৮৯ নং খতিয়ানের ২১৫২ নং দাগের আংগারিয়া ইউনিয়নের হাজতখোলা গ্রামের মৃত নুরুল হক মাঝির ছেলে বাবুল মাঝিগং সরকারের কাছ থেকে দশমিক ১৬৩ শতাংশ জমি স্থানীয় নিবারন চন্দ্র সাহার কাজ থেকে খরিদ করে। দীর্ঘ ৭০ বছর যাবত ভোগ দখলে আছে বাবুল মাঝিগং। কিন্তু কিছুদিন যাবত সেই সম্পত্তি (দোকানঘর) দখল করার পাঁয়তারা করছে স্থানীয় কাশাভোগ গ্রামের আব্দুর রহমান সরদারের ছেলে ব্যবসায়ী মোদাচ্ছের সরদার। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় হঠাৎ করে সেই দোকানঘর দখল করে সরকারি ড্রেন বন্দ করে দোকানঘরে পাকা ফ্লোর করছিল মোতাচ্ছের ও তার লোকেরা।

বাবুল মাঝি বলেন, আমার বাবা ওই সম্পত্তি খরিদ করে। সেই হিসেবে আমরা মালিক। কিন্তু ক্রয়কৃত সম্পত্তি দখল করার পাঁয়তারা করছে মোদাচ্ছের সরদার। এ ঘটনায় সম্প্রতি চিকন্দী দেওয়ানী আদালতে একটি মামলা করেছি। আদালত ওই সম্পত্তিতে মোদাচ্ছের সরদারকে না আসার জন্য চিরস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা আরোপ করে। কিন্তু চিরস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে দোকানঘর দখলের পায়তারা করছে মোদাচ্ছের।

আংগারিয়া বাজারের কয়েকজন ব্যবসায়ী জানান, আমরা জানি দোকানঘরটি বাবুল মাঝিগংদের। কিন্তু স্থানীয় প্রভাবশালীদের যোগসাজশে মোদাচ্ছের সরদার দোকানঘরটি দখলের পায়তারা করছে। এটা আইন পরিপন্থী।

এ ঘটনায় মোদাচ্ছের সরদারের সঙ্গে যোগাযোগ করতে চাইলেও তাকে পাওয়া যায়নি।

আংগারিয়া পুলিশ ফাঁড়ির ইনর্চাজ (আইসি) জাফর আলী বিশ্বাস মুঠোফোনে বলেন, আংগারিয়া বাজার বণিক সমিতির সাধারণ সম্পাদকসহ একাধিক ব্যবসয়ীদের সঙ্গে এ ব্যাপারে কথা বলছি। বাজারের সরকারি ড্রেন ভরাট করে দোকানঘর পাকা করার চেষ্টা করে মোদাচ্ছের। আমরা গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনি।