Sunday 25th February 2024
Sunday 25th February 2024

Notice: Undefined index: top-menu-onoff-sm in /home/hongkarc/rudrabarta.net/wp-content/themes/newsuncode/lib/part/top-part.php on line 67

জাজিরায় ২৬৪৫ জন ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে উফশী জাতের বীজ বিতরণ

জাজিরায় ২৬৪৫ জন ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে উফশী জাতের বীজ বিতরণ

মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা মোতাবেক প্রতি ইঞ্চি জায়গা ব্যবহারের লক্ষ্যে এবং নতুন জাত সম্প্রসারণের মাধ্যমে ফলন বৃদ্ধির উদ্দেশ্যে শরীয়তপুর জাজিরা উপজেলায় ২২-২৩ অর্থবছরে রবি মৌসুমে ২৬৪৫ জন ক্ষুদ্র ও প্রান্তিক কৃষকের মাঝে বিনামূল্যে উফশী জাতের সরিষা, খেসারি, মুগ, পেয়াজ, মসুর, সয়াবিন, সূর্যমুখী, ভূট্টা, গম বীজ ও সার বিতরণ করার উদ্যোগ গ্রহণ করেছে জাজিরা উপজেলা কৃষি অধিদপ্তর।

সে ধারাবাহিকতায় বৃহস্পতিবার (১০ নভেম্বর) বেলা ১২ টার সময় উপজেলা পরিষদ চত্ত্বরে ৪টি ফসল যেমন সরিষার জন্য ১৬৫০ জন, মসুরের জন্য ৮০ জন, খেসারির জন্য ৬০ জন এবং ৭০ জন কৃষককে পেয়াজ বীজ ও সার বিতরণ করা হয়।

উপজেলা কৃষি অফিসার মো. জামাল হোসেন এর সভাপতিত্বে উপজেলা কৃষি অফিসারের কার্যালয় কর্তৃক আয়োজিত বিতরণ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. কামরুল হাসান সোহেল। এছাড়াও অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন জাজিরা পৌরসভার মেয়র মো. ইদ্রিস মাদবর, ভাইস চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা আঃ জব্বার আকন, মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান পারভিন আক্তার, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি জি এম নুরুল হক, বিকেনগর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান এসকান্দার আলী ভূইয়া, পালের চর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবুল হোসেন ফরাজী, অতিরিক্ত কৃষি অফিসার কৃষিবিদ মো. নাজমুল হুদা, কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার কৃষিবিদ বীথি রাণী বিশ্বাস, সহকারী কৃষি সম্প্রসারণ অফিসার কেরামত আলী মোল্লা, বিভিন্ন ইউনিয়নের উপসহকারী কৃষি অফিসার, পৌর কাউন্সিলর, ইউপি সদস্যগণ সহ কৃষক কৃষাণীরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রণোদনা কর্মসূচির বিতরণ উপলক্ষে বক্তরা কৃষি বান্ধব সরকারের কৃষি উন্নয়নে নানাবিধ কর্মসূচির ভুয়সী প্রশংসা করেন এবং কৃষি উৎপাদন বৃদ্ধিতে কৃষি বিভাগের প্রশাংসা করে কৃষক কে অধিক পরিমাণে ফলনে আন্তরিক ভাবে কাজ করার আহবান জানান।

উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মো. জামাল হোসেন বলেন, প্রণোদনা কর্মসূচিতে প্রতিজন কৃষক সরিষার জন্যে ১ কেজি বীজ, ১০ কেজি ডিএপি সার, ১০ কেজি করে এমওপি সার পাচ্ছেন, খেসারির জন্যে ৮ কেজি বীজ, ১০ কেজি ডিএপি, ৫ কেজি এমওপি সার, পেয়াজের জন্যে প্রতিজন কৃষক ১ কেজি বীজ, ১০ কেজি ডিএপি, ১০ কেজি এমওপি সার, মসুরের জন্যে ৫ কেজি বীজ, ১০ কেজি ডিএপি এবং ৫ কেজি এমওপি সার পাবেন, যাতে করে এক বিঘা জমিতে আবাদ করতে পারেন।