শুক্রবার, ৭ই আগস্ট, ২০২০ ইং, ২৩শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ১৭ই জিলহজ্জ, ১৪৪১ হিজরী
শুক্রবার, ৭ই আগস্ট, ২০২০ ইং

শরীয়তপুরে জাতীয় কবিতা মঞ্চ কাব্য আলোচনা ও সংবর্ধনা

শরীয়তপুরে জাতীয় কবিতা মঞ্চ কাব্য আলোচনা ও সংবর্ধনা

জাতীয় কবিতা মঞ্চ শরীয়তপুর জেলা শাখা স্থানীয় তিন কবির কাব্য আলোচনা ও সংবর্ধনা অনুস্ঠিত হয়।

গত ৮ ফেব্রুয়ারি (শনিবার) সন্ধা ৬টায় শরীয়তপুর সদর পুরাতন বাসস্ট্যান্ড দোয়েল বাংলা চাইনিজ রেষ্টুরেন্টে এক বর্নাঢ্য অায়োজনের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠানটি অনুষ্ঠিত হয়।

জাতীয় কবিতা মঞ্চ জেলা শাখার সভাপতি কবি মির্জা হযরত শাহিজীর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন জাতীয় কবিতা মঞ্চের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি কবি ও গবেষক মাহামুদুল হাসান নিজামী। অনুষ্ঠান উদ্ভোধন করেন দৈনিক রুদ্রবার্তার সম্পাদক ও প্রকাশক শহীদুল ইসলাম পাইলট।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন কবিতা মঞ্চের ঢাকা বিভাগীয় সভাপতি কবি কাজী আনিসুল হক, লোকজ গবেষক কবি শ্যমসুন্দর দেবনাথ, কবি কামাল উদ্দিন পারভেজ।

শরীয়তপুর জাতীয় কবিতা মঞ্চ অনুষ্ঠানে প্রধান আলোচক হিসাবে উপস্থিত থেকে আলোচনা করেন
কবি ও লেখক শাহাজালাল মিয়া।

কবিতা মঞ্চের অন্যান্যদের মধ্যে আলোচনায় অংশ গ্রহণ করে কবি গনেন কর্মকার, কবি রুদ্র রহমান, কবি সব্যসাচি নজরুল, কবি ইয়াসিন আযীয ওকবি আলতাফ হোসেন বাদল।

অনুষ্ঠানে কবি খান মেহেদী মিজান, কবি মানিক লাল সাধু ওকবি রফিক উসমানের প্রকাশিত কাব্য গ্রহন্থের উপর আলোচনা ও সংবর্ধনা অনুস্ঠিত হয়।

অনুষ্ঠান শেষে অতিথি বৃন্দ কবি সংবর্ধিত কবিদের হাতে সম্মাননা ক্রেস্ট তুলে দেন।

এ সময়ে অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি কবি মাহামুদুল হাসান নিজামী ও বিশেষ অতিথি কবি কাজী আনিসুল হক কে দৈনিক রুদ্রবার্তা পত্রিকার পক্ষ থেকে বিশেষ সম্মাননা ক্রেস্ট প্রধান করা হয়। এছাড়া অনুষ্ঠানের উদ্বোধক কবি শহীদুল ইসলাম পাইলটকে জাতীয় কবিতা মঞ্চ শরীয়তপুর শাখার পক্ষ থেকে সম্মাননা ক্রেস্ট প্রদান করেন অনুষ্ঠানের অতিথিবৃন্দ।

কবি আমিনুল এইচ এস এর সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন কবি এইচ এম শফিকুল ইসলাম স্বপন।

প্রধান অতিথির বক্তব্যে কবি মাহামুদুল হাসান নিজামী বলেন, কবিতা হোক অধিকার আদায়ের শ্লোগান। কবিরাই হয় প্রকৃত সাদামনের মানুষ এবং কবি লেখনীর মাধ্যমে ঘুমন্ত বিবেককে জাগ্রত করে। জাতীয় কবিতা মঞ্চ লেখক ও কবিদের অধিকার আদায়ে নিরলস ভাবে কাজ করে যাচ্ছে এবং প্রকৃত লেখকদের মূল্যয়ন ও প্রতিভা বিকাশে সচেষ্ট ভূমিকা রাখে, যার ধারাবাহিকতায় শরীয়তপুর জেলা শাখার আজকের এ আয়োজন। সবশেষে ক্রেস্ট পাওয়া কবিদের অনুভূতি, কবিতা ও গানের মধ্য দিয়ে অনুষ্ঠান সমাপ্ত হয়।