শুক্রবার, ২২শে জানুয়ারি, ২০২১ ইং, ৮ই মাঘ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৯ই জমাদিউস-সানি, ১৪৪২ হিজরী
শুক্রবার, ২২শে জানুয়ারি, ২০২১ ইং

নড়িয়াকে বাসযোগ্য শান্তির শহর হিসেবে গড়ে তোলার প্রতিশ্রুতি দিলেন এড. আবুল কালাম আজাদ

নড়িয়াকে বাসযোগ্য শান্তির শহর হিসেবে গড়ে তোলার প্রতিশ্রুতি দিলেন এড. আবুল কালাম আজাদ

আসন্ন শরীয়তপুরের নড়িয়া পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামী লীগের মনোনিত নৌকা মার্কার প্রার্থী জেলা আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক ও শরীয়তপুর আইনজীবী সমিতির একাধিকবার নির্বাচিত সাবেক সভাপতি অ্যাডভোকেট আবুল কালাম আজাদ (গেরিলা আজাদ)।

তিনি নড়িয়া পৌরসভাকে নাগরিকদের কাঙ্খিত শান্তির শহর হিসেবে গড়ে তিলতে অঙ্গীকারবদ্ধ। নির্বাচন কমিশন কর্তৃক মনোনয়নপত্র বৈধ ঘোষনার পর পৌরবাসীর দ্বারে দ্বারে গিয়ে দোয়া, আশির্বাদ ও নৌকা মার্কায় ভোট চাচ্ছেন আবুল কালাম আজাদ। পাশাপাশি তিনি নড়িয়া পৌরসভাকে পৌরবাসীর কাঙ্খিত আধুনিক ও উন্নত সুবিধা সম্পন্ন শহর হিসেবে গড়ে তোলার প্রতিশ্রুতি দিয়ে যাচ্ছেন। আগামী ৩০ জানুয়ারী নড়িয়া পৌরসভা নির্বাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

অ্যাডভোকেট আবুল কালাম আজাদ বলেন, আমাকে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন দেওয়ায় আমি প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা, উপমন্ত্রী একেএম এনামুল হক শামীম ও দলের প্রতি চির কৃতজ্ঞ। পৌরবাসী যদি আমাকে তাদের মূল্যবান ভোট দিয়ে পৌরমেয়র হিসেবে নির্বাচিত করেন তাহলে আমি পৌরবাসীর আশা আকাঙ্খা পূরণে আপ্রাণ চেষ্টা করবো। আমি চেষ্টা করবো নড়িয়াকে একটি আধুনিক শান্তির শহর হিসেবে গড়ে তুলতে। যেখানে নাগরিকদের সকল সুযোগ সুবিধা থাকবে। রাস্তাঘাট, ব্রীজ কালভার্ট নির্মাণ করে যোগাযোগ ব্যবস্থা উন্নত ও আধুনিকায়ন করা হবে। আধুনিক ড্রেনেজ ব্যবস্থা গড়ে তুলে জলাবদ্ধতা নিরসন করে জনদূর্ভোগ দূর করা হবে। শহরকে পরিষ্কার পরিচ্ছন্ন রাখতে আধুনিক ডাম্পিং ব্যবস্থা গড়ে তোলা হবে। সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ ও মাদকমুক্ত শহর গড়ে তোলা হবে। মসজিদ মন্দির সহ সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান আধুনিকায়ন করা হবে। গণকবরস্থান ও শ্মশ্বানঘাট গড়ে তোলা হবে। এখানে চিত্তবিনোদনের জন্য বিনোদন কেন্দ্র ও শিশুপার্ক নির্মাণ করা হবে। সর্বপরি পৌরবাসীর চাহিদা অনুযায়ী সকলকে সাথে নিয়ে পৌরসভাকে আধুনিক যুগোপযোগী পৌরসভা গড়ে তোলা হবে। এজন্য আমি পৌরবাসীর দোয়া ও সহযোগিতা কামনা করছি।