শনিবার, ১০ই ডিসেম্বর, ২০২২ ইং, ২৫শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৬ই জমাদিউল-আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরী
শনিবার, ১০ই ডিসেম্বর, ২০২২ ইং

বীমা খাতের অবদান বাড়ানোর জন্য বীমা মেলা আয়োজন করা হয়েছে : আইডিআরএ চেয়ারম্যান

বীমা খাতের অবদান বাড়ানোর জন্য বীমা মেলা আয়োজন করা হয়েছে : আইডিআরএ চেয়ারম্যান

বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষের চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জয়নুল বারী বলেছেন, অর্থনীতিতে বীমা খাতের অবদান অনেক বেশি। যদিও আমাদের দেশের অর্থনীতিতে বীমা খাত সেভাবে অবদান রাখতে পারছে না।

তিনি বলেন, পার্শ্ববর্তী দেশের দিকে তাকালে দেখা যায় তাদের জিডিপিতে বীমার অবদান কতটুকু। তাই আমরা বা আমাদের সরকারও চেষ্টা করছে দেশের জিডিপিতে বীমা খাতের অবদান বাড়াতে।

বরিশাল বীমা মেলা উপলক্ষ্যে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে আইডিআরএ চেয়ারম্যান এসব কথা বলেন। বুধবার ২৩ নভেম্বর বেলা ৩টায় বরিশাল সার্কিট হাউজ সম্মেলন কক্ষে এই সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

সংবাদ সম্মেলনে আইডিআরএ’র সদস্য মইনুল ইসলাম (প্রশাসন), মো. দলিল উদ্দিন (আইন), কামরুল হাসান (লাইফ) ও মো. নজরুল ইসলাম (নন-লাইফ) উপস্থিত ছিলেন। পপুলার লাইফ ইনসুরেন্স কোম্পানী লিঃ এর এমডি ও বিআইএফ’র প্রেসিডেন্ট বিএম ইউসুফ আলী ও বিআইএ’র ফার্স্ট ভাইস প্রেসিডেন্ট নাসির উদ্দিন আহমেদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদ সম্মেলনে দেশের বীমা খাতের বিভিন্ন দিক তুলে ধরেন আইডিআরএ চেয়ারম্যান মোহাম্মদ জয়নুল বারী। এসময় তিনি বীমা বিষয়ে প্রচার প্রচারণা বাড়াতে গণমাধ্যমে সংবাদ প্রচারের আহবান জানান।

এক প্রশ্নের জবাবে আইডিআরএ চেয়ারম্যান বলেন, জিডিপিতে বীমা খাতের অবদান বাড়ানোর জন্য বীমা মেলা আয়োজন করা হয়েছে। এর পাশাপাশি সাধারণ মানুষের কাছে বীমা বিষয়ে সচেতনতা তৈরি করা। গ্রাহক কোন পলিসি করবে এবং কোন পলিসি নিলে তাদের জন্য সুবিধা হবে বা সঞ্চয় হবে এই বিষয়ে প্রচার-প্রচারণা করাই বীমা মেলার মূল উদ্দেশ্য।

তিনি বলেন, অনেক বীমা গ্রাহক ভোগান্তির শিকার হচ্ছে। যেসব কোম্পানির গ্রাহক ভোগান্তির শিকার হচ্ছে আমরা সেই কোম্পানিকে চিহ্নিত করে ব্যবস্থা নিচ্ছি। দ্রুত বীমা দাবি পরিশোধ করার জন্য বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষ কাজ করছে বলেও জানান আইডিআরএ চেয়ারম্যান।

আরেক প্রশ্নের জবাবে মোহাম্মদ জয়নুল বারী জানান, দেশের বিভাগীয় শহরে বীমা উন্নয়ন ও নিয়ন্ত্রণ কর্তৃপক্ষের অভিযোগ কেন্দ্র খোলার উদ্যোগ নেয়া হবে। এটি চালু করা গেলে বীমা কোম্পানিগুলোর গ্রাহক হয়রানি অনেকাংশেই কমে আসবে।

সংবাদ সম্মেলনে আইডিআরএ সদস্য মইনুল ইসলাম বলেন, বীমা কোম্পানিগুলো ৮ হাজার কোটি টাকার দাবি পরিশোধ করেছে। এর মধ্যেই কিছু কোম্পানি গ্রাহক হয়রানি করছে।


error: Content is protected !!