বুধবার, ২৮শে জুলাই, ২০২১ ইং, ১৩ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৮ই জিলহজ্জ, ১৪৪২ হিজরী
বুধবার, ২৮শে জুলাই, ২০২১ ইং

শরীয়তপুরে ধর্মপ্রাণ মুসল্লীদের জন্য ২টি মডেল মসজিদ উন্মুক্ত করা হলো

শরীয়তপুরে ধর্মপ্রাণ মুসল্লীদের জন্য ২টি মডেল মসজিদ উন্মুক্ত করা হলো

শরীয়তপুরে মুজিববর্ষ উপলক্ষে প্রথম পর্যায়ে ৫০ টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের মধ্যে জেলা সদর ১ টি ও গোসাইরহাট উপজেলার ১ টি মোট ২ টি মডেল মসজিদ ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। উদ্বোধনের মাধ্যমে মডেল মসজিদ দুটি ধর্মপ্রাণ মানুষের জন্য উন্মুক্ত করে দেয়া হলো।

বৃহষ্পতিবার (১০ জুন) বেলা সারে ১১ টায় গণ ভবন থেকে ভার্চুয়াল মাধ্যমে উদ্বোধন করা হয় এই মডেল মসজিদ। শরীয়তপুর সদর উপজেলার মডেল মসজিদ ও ইসলামী সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে উদ্বোধন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয় সদর উপজেলার মডেল মসজিদ ও ইসলামী সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের অডিটোরিয়ামে।

শরীয়তপুর সদর উপজেলা ও গোসাইরহাট উপজেলায় সাড়ে ২৫ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত হয়েছে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রে দুটি।

জানাযায়, মসজিদ ভিত্তিক সমাজের গুরুত্ব বিবেচনায় নিয়ে ইসলামি মূল্যবোধের প্রসার ও ইসলামি সংস্কৃতি বিকাশের উদ্দেশ্যে দেশের প্রতিটি জেলা ও উপজেলায় একটি করে মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণের উদ্যোগ নিয়েছে বর্তমান সরকার। এতে ৮ হাজার ৭২২ কোটি টাকা ব্যয় ধরা হয়েছে। জেলা ও উপজেলা মিলে ৫৬০টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্র নির্মাণ করা হচ্ছে। মসজিদে নারী-পুরুষের নামাজ আদায়ের সুবিধার সঙ্গে প্রতিবন্ধীদের জন্যও থাকছে বিশেষ ব্যবস্থা। লাইব্রেরি, গবেষণা, প্রশিক্ষণ, দাওয়াতি কার্যক্রমসহ বহুমুখী ইসলামী শিক্ষা কার্যক্রমের কেন্দ্র হিসেবে গড়ে উঠছে এসব মসজিদ। যা মফস্বল থেকে ঢাকা পর্যন্ত ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের একটি চেইন হিসেবে কাজ করবে বলে জানাযায় ধর্ম মন্ত্রণালয়ের বক্তব্যে।

শরীয়তপুর সদর উপজেলার মডেল মসজিদ ও সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের উদ্বোধন ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন, জেলা প্রশাসক পারভেজ হাসান, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও আওয়ামীলীগের সভাপতি ছাবেদুর রহমান আলহাজ¦ সাবেদুর রহমান খোকা শিকদার, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার তানভীর হায়দার শাওয়ন, গণপূর্ত বিভাগের নির্বাহী প্রকৌশলী অমিত কুমার দেব, শরীয়তপুরের পৌরসভা মেয়র এড. পারভেজ রহমান জন, সদর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মনদীপ ঘরাই ও জেলার বিভিন্ন মসজিদ মাদ্রাসার ইমামগণ।