বুধবার, ৫ই অক্টোবর, ২০২২ ইং, ২০শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৯ই রবিউল-আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরী
বুধবার, ৫ই অক্টোবর, ২০২২ ইং
শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলায়

স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের অভিযোগে মাদ্রাসার ছা্ত্র আটক

স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের অভিযোগে মাদ্রাসার ছা্ত্র আটক

স্কুল পড়ুয়া দশম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগেমাদ্রাসা পড়ুয়া দশম শ্রেণিরছাত্র বাপ্পিসরদার (১৫) নামে এক কিশোর কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

১০ সেপ্টেম্বর শনিবার সকাল সাড়ে ৯ টায় ভেদরগঞ্জ উপজেলার রামভদ্রপুর ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ড সত্যপুর গ্রামে সরদার বাড়িতে ছোট একটি টিনের ঘর থেকে ছেলে ও মেয়েকে অটক করেছে ভেদরগঞ্জ থানার পুলিশ।

প্রেমের ফাঁদে ফেলে ও বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ভেদরগঞ্জ পৌরসভার ২নং ওয়ার্ড এলাকার ঐ স্কুল ছাত্রীকে ধর্ষণ করে সত্যপুরের সরদার বাড়ির স্বপন সরদারের ছেলে বাপ্পি সরদার।

স্থানীয় হাজী মীর বকশ সরদার বলেন, বাপ্পি ঐ মেয়েকে নিয়ে মাঝে মধ্যেই এই বাড়িতে আসে এবং ২ থেকে ৩ ঘন্টা সময় কাটায়। অন্য দিনের ন্যায় ঘটনার দিনও বাপ্পি ঐ মেয়েকে নিয়ে সকাল সাড়ে ৯ টার দিকে এসে এই বাড়ির ছোট একটি টিনের ঘরে মেয়েকে নিয়ে দরজা বন্ধ করলে আশে পাশের মহিলারা আমাকে ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধি রুবেল মীরকে জানায় এবং এই ঘটনা শুনে আশেপাশের লোকজন জড়ো হয়। থানায় ফোন দিয়ে পুলিশ কে জানায় পরে পুলিশ এসে আপত্তিকর অবস্থায় পায় এবং তাদের দু’জনকেই আটক থানায় নিয়ে যায়।

এ বিষয়ে ভেদরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্তকর্মকর্তা বাহালুল খান বাহার বলেন, মাদ্রাসা পড়ুয়া ছাত্র স্কুল পড়ুয়া ছাত্রীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ধর্ষণকরে। পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে তাদের দুজনকেই আটক করে থানায় নিয়ে আসে পরে ঐ স্কুলছাত্রী বাদী হয়ে থানায় একটি ধর্ষন মামলা করেন। ভেদরগঞ্জ থানা মামলা নং-০৪ তারিখ ১০-০৯-২০২২ ইং। নারীশিশু নির্যাতন দমন ২০০৩ সংশোধনী আইনের ৯/১ ধারা মোতবেক ধর্ষক বাপ্পীকে গ্রেফতার করে কোর্টে প্রেরণকরা হয়েছে। ঐ মেয়েকে মেডিকেল টেস্টেরজন্য শরীয়তপুর পাঠানো হয়েছে।


error: Content is protected !!