মঙ্গলবার, ৬ই ডিসেম্বর, ২০২২ ইং, ২১শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১১ই জমাদিউল-আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরী
মঙ্গলবার, ৬ই ডিসেম্বর, ২০২২ ইং

ভেদরগঞ্জ ডিএমখালিতে সরকারি খাল দখল করে দোকান ঘর নির্মানের অভিযোগ

ভেদরগঞ্জ ডিএমখালিতে সরকারি খাল দখল করে দোকান ঘর নির্মানের অভিযোগ

শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলার সখিপুরের ডিএমখালিতে সরকারি খাল দখল করে দোকান ঘর নির্মাণের অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলা প্রশাসন এ কার্যক্রম বন্ধে একাধিকবার পদক্ষেপ নিলেও প্রভাবশালীদের দখলের কর্মযজ্ঞ চলে আসছে।

আইন কানুনের তোয়াক্কা না করে হাজার হাজার কৃষক পরিবারকে সেচ সংকটের মুখে ফেলে নিজেদের স্বার্থের জন্য সরকারি খাল দখল করে পাকা স্থাপনা নির্মাণের কাজ চালিয়ে যাচ্ছে স্থানীয় প্রভাশালীরা। দখলের এই উৎসব চলছে উপজেলার বিভিন্ন স্থানে।

সরেজমিন গিয়ে দেখা গেছে, উপজেলার ডিএমখালি ইউনিয়নের ডিএমখালি বাজারে রাস্তার পূর্ব পাশের খালের একপাশ দখল করে ঐ গ্রামের শরীয়তুল্লাহ ঢালী পাকা দোকান নির্মাণের জন্য কাজ করেছেন।

এই দখলের কারণে খালের পানি প্রবাহ বন্ধ হয়ে যাওয়ায় ডিএমখালি বাজার, মোল্যা বাজার, চরচান্দা, সখিপুর বাজার ও তারাবুনিয়া এলাকার কয়েকশ একর জমিতে ধানের চাষ ব্যাহত হওয়ার আশঙ্কা দেখা দিয়েছে। খাল দখলকারী শরীয়তুল্লাহ ঢালী বলেন, এটা তো বাড়ি বানাচ্ছি না। দোকানঘর করেছি। এতে আর সমস্যা কি ? সবাই তো করে।

এসব খাল দখল করে দোকান নির্মাণ করায় ইরি-বোরো মৌসুমে বিভিন্ন খালের পানি প্রবাহ বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। এতে ওই এলাকার কৃষকদের মাঝে ক্ষোভ দেখা দিয়েছে। নির্মাণকারীরা প্রভাবশালী হওয়ায় কেউ কিছু বলতে সাহস পাচ্ছে না।

ভেদরগঞ্জ উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি), ইমামুল হাফিজ নাদিম জানান, বিষটি আমি শুনেছি। আমি ঘটনাস্থলে গিয়ে দোকান নির্মানের কাজ বন্ধ করে দিয়েছি।বিষটি নিয়ে আমরা দ্রুত ব্যাবস্থা গ্রহন করবো।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, খাল দখলমুক্ত করতে দ্রুত পদক্ষেপ নেওয়া হবে।


error: Content is protected !!