বৃহস্পতিবার, ৯ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ ইং, ২৬শে মাঘ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ১৮ই রজব, ১৪৪৪ হিজরী
বৃহস্পতিবার, ৯ই ফেব্রুয়ারি, ২০২৩ ইং

শরীয়তপুর মডেল মসজিদ ভার্চুয়ালী উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

শরীয়তপুর মডেল মসজিদ ভার্চুয়ালী উদ্বোধন করেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

শরীয়তপুর জেলা দৃষ্টিনন্দন মডেল মসজিদ ও ইসলামী সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের নির্মাণকাজ শেষ হয়েছে গতসপ্তাহে।
১৬ জানুয়ারি ২০২৩ সকাল ১০ টায় ওসমানী স্মৃতি মিলনায়তন, ঢাকার ধর্ম বিষয়ক মন্ত্রণালয় কর্তৃক দেশের প্রতিটি জেলা ও উপজেলায় নির্মাণাধীন ৫৬৪ টি মডেল মসজিদ ও ইসলামী সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের মধ্যে দ্বিতীয় পর্যায়ে ৫০ টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের শুভ উদ্বোধন অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।


১৬ জানুয়ারি দুপুর বারোটার দিকে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা এমপি প্রধান অতিথি হিসেবে গণভবন প্রান্ত হতে ভার্চুয়ালি সংযুক্ত থেকে উক্ত ৫০ টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের শুভ উদ্বোধন করেন।

মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা সারাদেশে দ্বিতীয় ধাপে ৫০ টি মডেল মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের ভার্চুয়ালি পদ্ধতিতে শুভ উদ্বোধন কালে শরীয়তপুর জেলা সদর মডেল মসজিদ অডিটরিয়ামে উপস্থিত ছিলেন মাননীয় পানি সম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম এমপি শরীয়তপুর-২, মাননীয় সংসদ সদস্য ইকবাল হোসেন অপু এমপি শরীয়তপুর পালং জাজিরা-১, মাননীয় সংসদ সদস্য মোঃ নাহিম রাজ্জাক শরীয়তপুর-৩, শরীয়তপুর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এবং জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ছাবেদুর রহমান খোকা শিকদার, শরীয়তপুর জেলার সুযোগ্য জেলা প্রশাসক মোঃ পারভেজ হাসান। আরো উপস্থিত ছিলেন ঢাকা রেঞ্জ ডিআইজি সৈয়দ নুরুল ইসলাম বিপিএম বার পিপিএম, সুযোগ্য জেলা পুলিশ সুপার মোঃ সাইফুল হক, আন্তর্জাতিক ট্রাইব্যুনালের বিচারপতি এডভোকেট সিমন মোল্লা, কাজী মোহাম্মদ আবু হানিফ গোপালগঞ্জ গণপূর্ত জোনের প্রধান প্রকৌশলী, শরীয়তপুর জেলা গণপূর্ত বিভাগের প্রধান নির্বাহী প্রকৌশলী মোঃ মহিবুর রহমান পিইঞ্জ, শরীয়তপুর সদর পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট মোঃ পারভেজ রহমান জন, শরীয়তপুর জেলা ইসলামী ফাউন্ডেশনের উপ-পরিচালক মোঃ আশরাফ আলী সহ শরীয়তপুর জেলা পুলিশ প্রশাসন এবং বিভিন্ন দপ্তরের কর্মকর্তা কর্মচারী এবং জেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, জেলার বীর মুক্তিযোদ্ধা ও সাধারণ জনগণ উপস্থিত ছিল।

ভার্চুয়ালি পদ্ধতিতে মডেল মসজিদ শুভ উদ্বোধন শেষে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনার সাথে ভার্চুয়ালি সংযুক্ত থেকে শরীয়তপুর জেলা সদর মডেল মসজিদ থেকে গুরুত্বপূর্ণ কথা বলেন শরীয়তপুর জেলার সুযোগ্য জেলা প্রশাসক মোঃ পারভেজ হাসান। ভার্চুয়ালি সংযুক্ত থেকে জননেত্রী শেখ হাসিনার সাথে গুরুত্বপূর্ণ কথা বলেন শরীয়তপুর জেলা আলিয়া মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাওলানা মোঃ মিজানুর রহমান।

উল্লেখ্য, শরীয়তপুর গণপূর্ত বিভাগ ও ইসলামীক ফাউন্ডেশন জানায় , ধর্ম মন্ত্রণালয় ও ইসলামিক ফাউন্ডেশনের যৌথ উদ্যোগে এ মসজিদ ও ইসলামী সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের নির্মাণকাজ বাস্তবায়ন করেছে সরকারের গণপূর্ত অধিদপ্তর। পরিষদ চত্বরে প্রায় ৫০ শতাংশ জায়গার ওপর নির্মাণ করা হয়েছে অত্যাধুনিক চারতলার দৃষ্টিনন্দন মডেল মসজিদ। মডেল এ মসজিদ নির্মাণে খরচ হয়েছে ১৪ কোটি টাকা। নির্মাণশৈলীতে মুগ্ধ হবেন যে কেউ। বিশেষ করে রাতের অপরূপ আলোকসজ্জা মডেল মসজিদ ও ইসলামী সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের সৌন্দর্য বেড়ে যায়। মসজিদ ও ইসলামিক সাংস্কৃতিক এ কেন্দ্রে নারী ও পুরুষদের পৃথক অজু ও নামাজ আদায়ের সুবিধা রয়েছে। এছাড়া লাইব্রেরি, গবেষণা ও দ্বীনি দাওয়া কার্যক্রম, পবিত্র কোরআন হেফজ, শিশুশিক্ষা, অতিথিশালা, বিদেশি পর্যটকদের আবাসন, প্রতিবন্ধীদের জন্য নামাজের ব্যবস্থা রয়েছে, মৃতদেহ গোসলের ব্যবস্থা, হজযাত্রীদের নিবন্ধন, প্রশিক্ষণ ও ইমামদের প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা আছে। এছাড়া মসজিদটি শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত।

ইমাম ও মুয়াজ্জিনের আবাসনসহ সাংস্কৃতিক কেন্দ্রের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের জন্য অফিসের ব্যবস্থাও রাখা হয়েছে এখানে। এ মডেল মসজিদে একসঙ্গে এক হাজার ২০০ মুসল্লি নামাজ আদায় করতে পারবেন।

 


error: Content is protected !!