বৃহস্পতিবার, ২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ ইং, ১৪ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৩রা রবিউল-আউয়াল, ১৪৪৪ হিজরী
বৃহস্পতিবার, ২৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ ইং

ডামুড্যায় রাস্তার পাশের সরকারি গাছ কেঁটে নিলেন ইউপি মেম্বার

ডামুড্যায় রাস্তার পাশের সরকারি গাছ কেঁটে নিলেন ইউপি মেম্বার
ডামুড্যায় রাস্তার পাশের সরকারি গাছ কেঁটে নিলেন ইউপি মেম্বার

ডামুড্যা উপজেলার ধানকাঠি ইউনিয়নে এলজিইডির রাস্তার পাশ থেকে ইউনিয়ন পরিষদের ২ নং ওয়ার্ড সদস্য নেছার উদ্দিন গাছ কেঁটে নিয়েছেন। নিজের জমিতে লাগানো গাছ কেঁটে নেয়ার কথা স্বীকার করেছেন মেম্বার নেছার উদ্দিন। উপজেলা প্রশাসন সংবাদ পেয়ে পুলিশ পাঠিয়ে গাছ জব্দ করেছেন। তদন্তে অনিয়ম প্রমানিত হলে মামলা করা হবে বলেও জানিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার। এর পূর্বেও লাখ লাখ টাকা মূল্যের গাছ কেঁটে নেয়ার অভিযোগ রয়েছে ওই মেম্বারের বিরুদ্ধে।
ধানকাঠি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ ও স্থানীয়রা জানায়, গত শনি ও রবিবার রাতে শ্রমিক নিয়ে শরীয়তপুরের ডামুড্যা উপজেলার ধানকাঠি ইউনিয়নের ২ নং ওয়ার্ড সদস্য নেছার উদ্দিন শরীয়তপুর-নাগেরপাড়া এলজিইডি সড়কের পাশ থেকে প্রায় ১ লাখ টাকা মূল্যমানের বিভিন্ন কাঠের গাছ কেঁটে নেয়। পরবর্তীতে সেই গাছের গুড়ি দুইটি স’ মিলে নিয়ে চেরাই করেছে। অবশিষ্ট গাছের গুড়ি স’ মিলেই জব্দ করেছেন পুলিশ।
ধানকাঠি ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক আলী আজগর কাজি বলেন, মেম্বার রাতের আধারে গাছ কেটে নিয়েছে। আমি বিষয়টি লিখিত ভাবে উপজেলা নির্বাহী অফিসারসহ সংশ্লিষ্ঠ কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি। আমি এই দুর্নীতিবাজ মেম্বারের বিচার দাবী করছি।
অভিযুক্ত ইউপি সদস্য নেছার উদ্দিন বলেন, আমার জমির মধ্য দিয়ে এলজিইডির রাস্তা গেছে। রাস্তার দুই পাশের গাছ আমার। আমার গাছ আমি কেঁটে নিয়েছি। স্থানিয় কতিপয় লোক বিষয়টি প্রশাসনকে জানিয়ে জটিলতা সৃষ্টি করেছে। আমি সরকারের কোন গাছ কাটি নাই।
উপজেলা নির্বাহী অফিসার মুর্তজা আল মুঈদ বলেন, সরকারি গাছ কাটার সংবাদ পেয়ে পুলিশ পাঠিয়ে গাছ জব্দ করা হয়েছে। বিষয়টি সহকারী কমিশনারের (ভূমি) মাধ্যমে তদন্ত করা হবে। মেম্বার অভিযুক্ত হলে মামলা করব।


error: Content is protected !!