Tuesday 28th May 2024
Tuesday 28th May 2024

Notice: Undefined index: top-menu-onoff-sm in /home/hongkarc/rudrabarta.net/wp-content/themes/newsuncode/lib/part/top-part.php on line 67

গোসাইরহাটে তুচ্ছ ঘটনায় গৃহবধূকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ

গোসাইরহাটে তুচ্ছ ঘটনায় গৃহবধূকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ

শরীয়তপুরের গোসাইরহাটে তুচ্ছ ঘটনায় গৃহবধূ রীনা বেগমকে পিটিয়ে আহত করার অভিযোগ স্থানীয় বখাটে ভুট্টু সরদার(২৫) এর বিরুদ্ধে। গত ১০ এপ্রিল বুধবার গোসাইরহাট পৌরসভায় মিত্রশেনপট্টি এলাকায় এ হামলার ঘটনা ঘটে। এঘটনায় আহতের স্বামী তোফাজ্জল সরদার(৪৫) তিনজনকে আসামী করে গোসাইরহাট থানায় একটি হত্যা মামলা করেন।

আসামিরা হলেন১/ ভুট্টু সরদার,২/ সুমন সরদার ৩/ মনি বেগম। পুলিশ ২ নং আসামি সুমন সরদারকে গ্রেপ্তার করে কারাগারে পাঠিয়েছে।

প্রত্যক্ষদোর্ষী ও এজাহার সুত্রে জানা যায়,রমজানের শেষে ইফতারের সময় বাড়ির ছেলে মেয়েরা তারাবাতি ফাটনোর বিষয় ভুট্টুদের বাড়ি উঠানে যায় তোফাজ্জল সরদারের মেয়ে ও প্রতিবেশী বাড়ির ছেলে মেয়েরা যায়।কিন্তু ভুট্ট সরদার ছেলে মেয়েদরে গালিগালাজ করতে থাকে। পরে রীনা বেগম প্রতিবাদ করায় তাকেও তেড়ে আসেন ভুট্টু।পরে অন্য বাড়ির উঠোনে গিয়ে ছেলেমেয়েরা খেলতে গেলে সেখানে রিনা বেগমকে পেয়ে ভুট্টো সদ্দার ও তার ভাই সুমন সরদার ও তার মা গিয়ে ভট্টু সরদার প্রথমে পাকের ঘর থেকে লাকরি দিয়ে রীনা বেগমকে মাথা আঘাত করে মাটিতে ফেলে দেয়। পরে শরীরের সকল জায়গায় পিটিয়ে নীলাফুলা করে ফেলে। পরে ভুট্টু পালিয়ে যায়।পরে তার মাথা দিয়ে রক্ত পড়তে থাকে। এর পর স্থানীয়রা গোসাইরহাট হাসপাতালে নিয়ে আসলে চিকিৎসক তাকে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে রেফার্ড করে। এখন শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে গুরুতর আহত অবস্থায় চিকিৎসাধীন রয়েছেন রীনা বেগম। এছাড়াও এলাকার মেয়েদেরকে ধমকি ধামকি দিয়ে যায় সবসময় এই ভুট্টু সরদার।

প্রত্যেক্ষদোর্ষী টুম্পা বলেন, আমরা ভুট্টু সরদারের উঠানে তারা বাতি ফুটনোর জন্য গিয়েছিলাম চান রাতে। ভুট্টু সরদার গালিগালাজ করলে আমরা আমাদের উঠুনে চলে আসি। তারপরে রীনা মামি আমাদের সাথে আসে।পরে ভুট্টু এসে মামিকে লাকরি দিয়ে অনেক মারধর করে। মাথা ফাটিয়ে ফেলে। পরে মামিকে হাসপাতালে নিয়ে যাই। ভুট্টুর ভয়ে আমরা আতংকে আছি। ভট্টুকে গ্রেফতার করে উপযুক্ত শাস্তি দেয়া হউক। যাতে কোন মেয়েকে আর গায়ে হাত দিতে না পারে।

আহত রীনা বেগন বলেন, আমি একজন মহিলা মানুষ। একজন পুরুষ মানুষ যদি আমাকে এভাবে মানে তাহলে কিভাবে বসবাস করব। আমাকে মেরেই ফেলত।

বাদী তোফাজ্জল সরদার বলেন, এখনো ভুট্টু গ্রেফতার হয়নি, ভুট্টকে গ্রেফতার করে আইনের আওতায় আনা হউক।তার সর্বোচ্চ শাস্তি দাবি করছি।

গোসাইরহাট থানা অফিসার ইনচার্জ পুষ্পেন দেবনাথ জানান, মিত্রসেন পট্রি গ্রামে রিনা নামের এক মহিলাকে পিটানোর অভিযোগে তার স্বামী বাদী হয়ে মামলা করে এবং এঘটনায় একজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে বাকি আসামীদের গ্রেপ্তার করতে অভিযান অব্যাহত আছে।