রবিবার, ১৭ই অক্টোবর, ২০২১ ইং, ১লা কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১১ই রবিউল-আউয়াল, ১৪৪৩ হিজরী
রবিবার, ১৭ই অক্টোবর, ২০২১ ইং

কালকিনির লক্ষীপুরে চাঁদা না পেয়ে এক যুবককে পিটিয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ

কালকিনির লক্ষীপুরে চাঁদা না পেয়ে এক যুবককে পিটিয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ

মাদারীপুরের কালকিনি উপজেলার লক্ষীপুর ইউনিয়নে চাঁদা না পেয়ে এক যুবককে পিটিয়ে হত্যা চেষ্টার অভিযোগ করা হয়েছে। চিকিৎসা দিতেও বাঁধা দেওয়া হয় বলে অভিযোগ করা হয়। আহত যুবকের অবস্থা আশংকাজনক হওয়ায় ঢাকায় প্রেরণ করা হয় এবং তার স্ত্রীকে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

বুধবার ১৪ জুলাই বিকালে লক্ষীপুর ইউনিয়নের রায়পুর ভাটোবালি গ্রামের মৃত অছুরুদ্দিন সরদারের ছেলে ইলিয়াস সরদার (৩৫) ও তার স্ত্রী জাহানারা বেগমের উপর হামলার ঘটনা ঘটে। হামলাকারীরা ইলিয়াস সরদারের বাড়িতে এসে চাঁদা দাবী করলে তা দিতে না পারায় তাকে এলোপাথারি পিটাতে থাকে। এসময় ইলিয়াস সরদারের স্ত্রী জাহানারা বেগম (২৬) স্বামীকে বাঁচাতে এগিয়ে আসলে তাকেও পিটিয়ে জখম করা হয় বলে অভিযোগ করা হয়। আহত অবস্থায় চিকিৎসার জন্য মাদারীপুর সদর হাসপাতালে তাদের নেওয়ার সময় পথিমধ্যে বাঁধার সৃষ্টি করা হয়। যেকারণে তারা শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে আসতে বাধ্য হন বলে জানান তাদের স্বজনরা।

শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে গিয়ে দেখা যায়, পিটিয়ে আহত করা ইলিযাস মাদবরের অবস্থা সংকটাপন্ন হওয়ায় তাকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা নিয়ে যাওয়া হচ্ছে। এ সময় ইলিয়াস মাদবর দৈনিক রুদ্রবার্তাকে বলেন, ‘আজ তিন মাস যাবৎ জসিম সরদার, আলমগীর সরদার, ইকবাল সরদার, ফরহাদ, ইমরান, সায়েম, শাহাদাত, রাজীব, রাসেল গং আমার কাছে ৩ লক্ষ টাকা চাঁদা চায়। এ নিয়ে আমি কালকিনি উপজেলা চেয়ারম্যান মীর গোলাম ফারুক ভাইর কাছে বিচার চাই। কিন্তু ওরা এতে আমার উপর আরো ক্ষিপ্ত হয়ে আমার বাসায় এসে চাঁদা দাবী করলে আমি ১৫ দিনের সময় চাই। ১৫ দিন শেষে আজ টাকার জন্য এসেছে। কিন্তু আমি গরীব মানুষ। টাকা দিতে না পারায় আমাকে মারতে থাকে। এ সময় আমার স্ত্রী ছুটে এলে তাকে সহ মারতে থাকে।

শরীয়তপুর সদর হাসপাতালের জরুরী বিভাগ থেকে আহত জাহানারা বেগম দৈনিক রুদ্রবার্তাকে বলেন, আমার স্বামী ওদের চাঁদা দিতে না পারায় আমার সামনে মারতে থাকে। স্বামীকে বাঁচাতে ছুটে গেলেও আমাকেও মারে।

শরীয়তপুর সদর হাসপাতালের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডাক্তার সাইয়্যিদা নাসরিন দৈনিক রুদ্রবার্তাকে বলেন, রোগীর ওপেন ফ্যাক্সচার হওয়ার কারণে ঢাকায় রেফার করা হয়েছে।’