বুধবার, ২৮শে জুলাই, ২০২১ ইং, ১৩ই শ্রাবণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৮ই জিলহজ্জ, ১৪৪২ হিজরী
বুধবার, ২৮শে জুলাই, ২০২১ ইং

মায়ের সঙ্গে অভিমান করে ভেদরগঞ্জে মেয়ের আত্মহত্যা

মায়ের সঙ্গে অভিমান করে ভেদরগঞ্জে মেয়ের আত্মহত্যা

শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলায় মায়ের সঙ্গে অভিমান করে আখের পোকা মারার বিষ খেয়ে আত্মহত্যা করেছেন সুমাইয়া (১৩) নামে এক কিশোরী। গত শুক্রবার ০৯ জুলাই সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে উপজেলার চরসেনসাস ইউনিয়নে এ ঘটনা ঘটে। সুমাইয়া আক্তার প্রামাণিক গ্রামের আবুল প্রামানিকের মেয়ে।

পুলিশ ও সুমাইয়ার মা ফাতেমা বেগম দৈনিক রুদ্রবার্তাকে বলেন, কৃষক আবুল প্রামাণিকের সংসারে তিন ছেলে ও এক মেয়ের মধ্যে সুমাইয়া সবার ছোট। শুক্রবার বিকেলে গোসল করতে যাওয়ার সময় মায়ের কাছে দুই টাকা দামের স্যাম্পু দাবি করে সে। কিন্তু মা সেটি না দিয়ে গালমন্দ করেন।

এরপরই অভিমান করে শোয়ার রুমে গিয়ে দরজা লাগিয়ে বিষ খেয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায় সুমাইয়া। সন্ধ্যায় তাকে স্থানীয় ক্লিনিকে নিয়ে যাওয়ার পথে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন।

সখিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আসাদুজ্জামান হাওলাদার দৈনিক রুদ্রবার্তাকে বলেন, এ ঘটনায় একটি অপমৃত্যুর মামলা হয়েছে। প্রাথমিক অনুসন্ধানে এটি আত্মহত্যা বলেই মনে হচ্ছে। মায়ের সঙ্গে অভিমান করে মেয়েটি আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছে। তারপরও এটি হত্যা না আত্মহত্যা সেটি নিশ্চিত করার জন্য লাশ ময়নাতদন্ত করতে শরীয়তপুর সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে।