Tuesday 25th June 2024
Tuesday 25th June 2024

Notice: Undefined index: top-menu-onoff-sm in /home/hongkarc/rudrabarta.net/wp-content/themes/newsuncode/lib/part/top-part.php on line 67

শরীয়তপুরে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় নারীসহ আহত ৭

শরীয়তপুরে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় নারীসহ আহত ৭

শরীয়তপুরের সখিপুরে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে প্রতিপক্ষের হামলায় নারীসহ ৭ জন আহত হয়েছে। বৃহস্পতিবার রা‌তে এ ঘটনা ঘ‌টে।

আহতদের শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। দুই নারী ও তিন পুরুষসহ ৫জন গুরুতর আহত আবস্থায় শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

হামলাকারিদের বিচারের দাবী করেছেন ভুক্তভোগি পরিবার। এঘটনায় এখনো কেউ লিখিত অভিযোগ দায়ের করে নাই বলে সখিপুর থানা পুলিশ জানায়।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, দীর্ঘদিন যাবৎ সখিপুর ছৈয়াল কান্দি গ্রামে বাবুল দেওয়ান ও একই বাড়ির সুমন দেওয়ানগংদের মাঝে জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধ চলছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় কাথা-কাটাকাটির একপর্যায়ে সুমন দেওয়ান গংরা বাবুল দেওয়ানের ঘড়ে ঢুকে হামলা চালায়। তার স্ত্রী ও কন্যারা এগিয়ে এলে তাদেরকেও এলাপাথারি পিটিয়ে কুপিয়ে যখম করে। আহতরা হলেন বাবুল দেওয়ান (৬০),লিটন দেওয়ান (৪০), সগির হাওলাদার(৩৮),সেলিনা (২৬), সুমি আক্তার (২২), মালা (১৪), জোসনা বেগম (৫৪) এদেরকে স্থানিয়ও পুলিশ আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠায়। বর্তমানে শরীয়তপুর সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছে।

বাবুল দেওয়ানও তার স্ত্রী জোসনা বেগম বলেন , গরিব বলে আমরা বিচার পাইনি । গতবছর আমাদের মারপিট করেছে সুমন দেওয়ানের লোক জন। এব্যপারে সখিপুর থানায় মামলা করেও বিচার পাইনি। এবার আবার আমাদের পিটিয়ে ও কুপিয়ে ৭ জনকে আহতো করেছে। আমরা হাসপাতালে ভর্তি হয়ে আতংকে দিন কাটাই। ভয়ে থানায় গিয়ে মামলা করতে পারছি না। আমাদের হুমকি দিচ্ছে সুমনের লোকজন। এদের বিচার দাবি করছি।

সুমন দেওয়ান বলেন , জায়গা জমিনিয়ে দ্বন্ধ আছে, এনিয়ে কোটে মামলা চলছে। আমার দাদিকে মারপিট করেছে। আমি মারিনি মালেক দেওয়ান, নাজিম দেওয়ান,গনি দেওয়ান এরা তাদেরকে মারপিট করেছেন।

সখিপুর থানা পুলিশ ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. এনামুল হক এনাম বলেন, জমি জমা সংক্রান্ত বিরোধের জের ধরে মারামারির ঘটনা ঘটেছে। আহতদের উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এখনও কোন অভিযোগ পাওয়া যায়নি অভিযোগ পাওয়াগেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।