সোমবার, ১লা জুন, ২০২০ ইং, ১৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ৯ই শাওয়াল, ১৪৪১ হিজরী
সোমবার, ১লা জুন, ২০২০ ইং

রাসুল (স:) কে অবমাননা ও ভোলায় নির্বিচারে মুসলিম হত্যার বিরুদ্ধে শরীয়তপুরে বিক্ষোভ

রাসুল (স:) কে অবমাননা ও ভোলায় নির্বিচারে মুসলিম হত্যার বিরুদ্ধে শরীয়তপুরে বিক্ষোভ

ফেসবুক অ্যাকাউন্টে কথিত কমেন্টের জেরে ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলায় পুলিশ-জনতা সংঘর্ষে ৪ মুসল্লি নিহত হওয়ার প্রতিবাদে ৬ দফা দাবিতে জেলা বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে তৌহিদী জনতা।
সোমবার বেলা সাড়ে ১১ টায় শরীয়তপুর জেলা শহরের বটতলা থেকে একটি প্রতিবাদ মিছিল বের হয়ে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনে গিয়ে বিক্ষোভ সমাবেশ করেন তৌহিদী জনতা।
বিক্ষোভ সমাবেশে তৌহিদী জনতার সভাপতি মাওলানা শফিউল খানের সভাপতিত্বে সংক্ষিপ্ত বক্তব্য রাখেন উসমানিয়া মাদ্রাসার প্রিন্সিপাল ও শরীয়তপুর ওলামা পরিষদের সিনিয়র সহ-সভাপতি মাওলানা আবু বক্কর, বেপারী পাড়া জামে মসজিদের খতিব ও ওলামা পরিষদের সদর থানার সভাপতি তানভীর হাসান সিরাজী, বুড়িরহাট কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের খতিব সাব্বির আহমেদ উসমানী প্রমুখ।
সভাপতির বক্তব্যে মাওলানা শফিউল খান বলেন বোরহানউদ্দিন থানা বিপ্লব চন্দ্র আমাদের প্রিয় নবীকে নিয়ে যে অবমাননাকর পোস্ট দিয়েছে তাকে অবিলম্বে গ্রেপ্তার করে আইনের আওতায় এনে সর্বোচ্চ শাস্তি ফাঁসির আদেশ দেওয়া হোক এবং ভোলার এসপি এখনো সে দায়িত্বে আছে তাকে অনতিবিলম্বে প্রচলিত আইনের মাধ্যমে তার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি চাই। বক্তব্য শেষে ঘোষণাপত্র পেশ করেন। মহান আল্লাহ তায়ালা ও রাসুল (স.) কে নিয়ে অবমাননাকর পোস্ট দাতা বিপ্লব চন্দ্র শুভকে সর্বোচ্চ শাস্তি ফাসি দিতে হবে। এর প্রতিবাদে নবী প্রেমিক তৌহিদী ঈমানদার জনতার শান্তিপূর্ণ প্রতিবাদ মিছিলের উপর পুলিশ কর্তৃক নির্বিচারে পাখির মত গুলি করে হত্যাকারীদের দৃষ্টান্তমূলক বিচার নিশ্চিত করতে হবে। সকল আহত ভাইদের সরকারি খরচে সুচিকিৎসা নিশ্চিত করতে হবে। সকল শহীদ ভাইদের পরিবারকে সরকার কর্তৃক যথাপোযুক্ত ক্ষতিপূরণ দিতে হবে। ভোলার এই ঘটনায় গ্রেফতারকৃত সকল ভাইদের নিঃশর্ত মুক্তি দিতে হবে। আগামী ৪৮ ঘণ্টার মধ্যে এই দাবীগুলো বাস্তবায়নে কার্যকরী পদক্ষেপ গ্রহণ না করলে কঠোর কর্মসূচিতে ঘোষণা দেন।