শুক্রবার, ৫ই মার্চ, ২০২১ ইং, ২০শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ, ২০শে রজব, ১৪৪২ হিজরী
শুক্রবার, ৫ই মার্চ, ২০২১ ইং

আওয়ামীলীগের দুঃসময়ে শরীয়তপুরে চিকন্দীর এড. আক্তারউজ্জামান খান

আওয়ামীলীগের দুঃসময়ে শরীয়তপুরে চিকন্দীর এড. আক্তারউজ্জামান খান

আগামী মে-জুন ২০২১ সালের এ বছরের মধ্যেই শুরু হবে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন। এ নির্বাচনে চিকন্দী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে আওয়ামী লীগের অনেকেই মনোয়ন প্রত্যাশী হিসেবে দাবী করবেন। কিন্তু আওয়ামী লীগের দুঃসময়ে যারা চিকন্দী ইউনিয়নে অগ্রণী ভূমিকা পালন করেছেন এডভোকেট আক্তারউজ্জামান খান সবদিক দিয়ে এগিয়ে। তিনি শরীয়তপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী পরিষদের সদস্য ইকবাল হোসেন অপু এমপি’র অত্যন্ত আস্থাভাজন ব্যক্তিত্ব। বর্তমানে সদর উপজেলার চিকন্দী ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন অ্যাডভোকেট আক্তারউজ্জামান খান। তিনি চিকন্দী ইউনিয়ন চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী হিসেবে আলোচনার শীর্ষে রয়েছেন বলে চিকন্দী ইউনিয়ন জনসাধারণের মুখে মুখে।

অ্যাডভোকেট আক্তারউজ্জামান খান শুধু নির্বাচনকে সামনে রেখে গ্রামগঞ্জে প্রচারনা চালাচ্ছেন এমন নয়, তিনি সবসময় মাঠে গিয়ে জনসাধারণ ও ভোটারদের সাথে দেখা-সাক্ষাৎ রক্ষা করেন। তিনি আগামী নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী আশাবাদী অত্যন্ত ভদ্র মানুষ। এলাকার সকলেই তাকে ভালোবাসে। তিনি এলাকার ভোটারদের কাছে জনসেবার সুযোগ চান এজন্য শরীয়তপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য ইকবাল হোসেন অপুর আশীর্বাদ কামনা করেছেন। পাশাপাশি তিনি দলীয় নেতাকর্মীদের সার্বিক সহযোগিতা ও সমর্থন প্রত্যাশা করছেন। এডভোকেট আক্তারউজ্জামান খান ইতিমধ্যেই স্থানীয় ভোটারদের মধ্যে ব্যাপক আগ্রহ ও আলোচনার ঝড় বইছে। তিনি এলাকায় মানব সেবায় নিজেকে সবসময় নিয়োজিত রেখেছেন এবং ইউনিয়নের এক প্রান্ত থেকে অন্য প্রান্ত ঘুরে ফেরে জনসাধারণের কাছে গিয়ে জনসাধারণের যেকোনো সমস্যা সমাধানের আপ্রাণ চেষ্টা করে যাচ্ছেন। তিনি আওয়ামী লীগের মনোনীত প্রার্থী হিসেবে চিকন্দী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান নির্বাচিত হতে পারলে ইউনিয়নের ব্যাপক উন্নয়ন করবেন। এডভোকেট আক্তারউজ্জামান দলীয় সকল কর্মকাণ্ডে সক্রিয় অংশগ্রহণের মধ্য দিয়ে নেতাকর্মীদের সাথে যোগাযোগ রক্ষা করে চলেছেন।

করোনা মহামারীতে গৃহবন্দি মানুষ যখন অনাহারে দিন কাটাচ্ছিল তখন এডভোকেট আক্তারউজ্জামান সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে ইউনিয়নের বিভিন্ন এলাকায় শত শত মানুষের মাঝে খাদ্য ও অর্থসহায়তাসহ স্বাস্থ্য সেবায় কাজ করেছেন। বিভিন্ন দুর্যোগেও তিনি অসহায় মানুষের পাশে সহায়তার হাত বাড়িয়ে দেন। এছাড়া আইনজীবী পেশায় আইনী সহায়তা দিতে গিয়ে গরীব অসহায়দের সাহায্য করে থাকেন। তিনি তার পেশাগত জীবনে যে অর্থ উপার্জন করে থাকেন, তার বেশিরভাগ অর্থ গরীব অসহায় ও দলীয় কার্যক্রমে ব্যয় করেন বলে জানা যায়।

এডভোকেট আক্তারউজ্জামান এলাকার প্রতিনিধি হয়ে জনসেবা সুযোগ পেলেই শরীয়তপুর-১ আসনের সংসদ সদস্য বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য ইকবাল হোসেন অপুর আশীর্বাদ নিয়ে চিকন্দী ইউনিয়নকে ঢেলে সাজিয়ে মডেল ইউনিয়ন হিসেবে গড়ে তুলতে চান। এডভোকেট আক্তারউজ্জামান খান ছাত্র জীবন থেকেই আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত। তিনি চিকন্দী সরকারি উচ্চবিদ্যালয়ের অষ্টম শ্রেণীতে পড়া অবস্থায় স্কুল কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক ছিলেন। বর্তমানে সদর উপজেলার চিকন্দী ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি এবং পরপর তিনবার তিনি সভাপতির দায়িত্ব পালন করছেন। তিনি চিকন্দী ইউনিয়ন ছাত্রলীগের ৪ বার সভাপতির দায়িত্ব পালন করেছিলেন। তিনি সদর উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সহ-সভাপতি ছিলেন। তিনি সামাজিক কর্মকাণ্ডের সাথে সবসময়েই জড়িত রয়েছেন। তিনি চিকন্দী বঙ্গবন্ধু স্মৃতি সংঘের প্রতিষ্ঠাতা ও সাংগঠনিক সম্পাদক হিসেবে ১৯৯৪ সাল থেকে এখনো আছেন। তিনি জেলা আওয়ামী আইনজীবী পরিষদের সদস্য। তিনি চিকন্দী সরকারি উচ্চ বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদ কমিটির সদস্য। তিনি চিকন্দী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় পরিচালনা কমিটির সভাপতি। তিনি ধর্মপ্রাণ বলে পশ্চিম আবুড়া জামে মসজিদের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে আছেন। এছাড়া তিনি শরীয়তপুর জজ কোর্টের একজন দক্ষ আইনজীবী। তিনি আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চিকন্দী ইউনিয়ন-এর চেয়ারম্যান পদে আওয়ামী লীগের মনোনয়নপ্রত্যাশী। এজন্য শরীয়তপুর-১ আসনের এমপি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য ইকবাল হোসেন অপু আশীর্বাদ ও সার্বিক সহায়তা কামনা করেন।

এ ব্যাপারে অ্যাডভোকেট আকতারউজ্জামান খান বলেন, আমি ছাত্রজীবন থেকেই আওয়ামী লীগের রাজনীতির সাথে জড়িত আছি। বর্তমানে আওয়ামী লীগের রাজনীতি করি। আমি আশা করি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের রাজনৈতিক কর্মকাণ্ড বিবেচনা করে আমাকে আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চিকন্দী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে দলীয় মনোনয়ন দিয়ে জনসেবায় করার সুযোগ করে দিবে। আমি জনসভার সুযোগ পেলে শরীয়তপুর-১ আসনের এমপি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কার্যকরী সদস্য ইকবাল হোসেন অপু ভাইয়ের সার্বিক সহায়তায় চিকন্দী ইউনিয়নকে মডেল ও ডিজিটাল হিসেবে গড়ে তুলবো।

চিকন্দী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী অ্যাডভোকেট আকতারউজ্জামান খান সম্পর্কে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি এডভোকেট তপন কুমার চক্রবর্তী, চিকন্দী ৬ নং ওয়ার্ডের পাঁচবার নির্বাচিত মেম্বার মোহম্মদ আলী সরদার, ৩নং ওয়ার্ডের মেম্বার হাফেজ খান, ১নং ওয়ার্ডের মেম্বার তমিজ খান, ৯নং ওয়ার্ডের মেম্বার, মো: আইয়ুব আলী খানসহ যুবলীগ ও ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা বলেন, আকতারউজ্জামান খান একজন ভালো মানুষ। তিনি ছাত্রজীবন থেকেই নি:স্বার্থভাবেই আওয়ামী রাজনীতির সাথে জড়িত। আকতারউজ্জামান খান চিকন্দী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান হিসেবে একজন যোগ্য প্রার্থী।