সোমবার, ২৩শে মে, ২০২২ ইং, ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২২শে শাওয়াল, ১৪৪৩ হিজরী
সোমবার, ২৩শে মে, ২০২২ ইং

চেয়ারম্যান প্রার্থী এ‍্যাড. আক্তারউজ্জামান খান, চিকন্দী ইউনিয়নের গরিব দুঃখীদের অনুদানকে নিজের জন‍্য হারাম ঘোষনা করলেন

চেয়ারম্যান প্রার্থী এ‍্যাড. আক্তারউজ্জামান খান, চিকন্দী ইউনিয়নের গরিব দুঃখীদের অনুদানকে নিজের জন‍্য হারাম ঘোষনা করলেন

আগামী ৩১ জানুয়ারি ষষ্ঠধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন। এ নির্বাচনকে সামনে রেখে চিকন্দী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান প্রার্থীরা তাদের প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছেন। দিচ্ছেন ভোটারদের নানা প্রতিশ্রুতি। এবারের নির্বাচনে এডভোকেট আক্তারউজ্জামান খান আনারস প্রতিক নিয়ে চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে অংশগ্রহণ করেছেন।

এডভোকেট আক্তারউজ্জামান খান চেয়ারম্যান প্রার্থী হয়ে সাংবাদিকদের জিজ্ঞাসাবাদে বলেন, আগামী ৩১ জানুয়ারি চিকন্দী ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আমি আওয়ামী লীগের একজন মনোনীত প্রার্থী হিসেবে অংশগ্রহণ করেছি। আমার মার্কা হল আনারস। আমি যদি নির্বাচনে জয়লাভ করতে পারি, তাহলে ইউনিয়নের গরিব দুঃখী মেহনতী মানুষের টাকা অনুদান আমার এবং আমার পরিবারের জন্য হারাম। আমি এই ইশতেহার দিয়ে আমার নির্বাচনী প্রচারণা শুরু করেছি। আমি আশা রাখবো চিকন্দী বাসী আমার অতীত কর্মকাণ্ডের কারণে আমাকে বিপুল ভোটে এই নির্বাচনে বিজয়ী করবে। মহামারী করোনার মধ্যে মানুষ যখন ঘরে বসে থাকার কথা ছিল, আমি নিজে জীবনের ঝুঁকি নিয়ে অসহায় মানুষের পাশে দাঁড়িয়েছি। বাড়ি ঘর পুড়ে যাওয়া নি:স্ব মানুষকে সাহায্য সহযোগিতা করেছি। মানুষের চলাচলের জন্য নিজ টাকা খরচ করে রাস্তা করে দিয়েছি। ইউনিয়নের অনেক উন্নয়নে আমি সাহায্য সহযোগিতা করেছি।

এরপর তিনি তার ছাত্রজীবন থেকে শুরু করে রাজনৈতিক বিভিন্ন কর্মকাণ্ড ও বিভিন্ন পদ-পদবির কথা তুলে ধরেন এবং চিকন্দী ইউনিয়নকে একটি মাদকমুক্ত, সন্ত্রাসমুক্ত, ডিজিটাল ও আধুনিক মডেল হিসেবে গড়ে তোলার অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন।