সোমবার, ২৩শে মে, ২০২২ ইং, ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ২২শে শাওয়াল, ১৪৪৩ হিজরী
সোমবার, ২৩শে মে, ২০২২ ইং
শরীয়তপুর ভবনের সিড়ি নির্মানকে কেন্দ্রকরে 

আইনজীবী ও প্রভাষক সংঘর্ষে ১০ জন আহত

আইনজীবী ও প্রভাষক সংঘর্ষে ১০ জন আহত

শরীয়তপুর জেলা ও দায়রা জজ আদালত সংলগ্ন ধানুকা এলাকায় বিল্ডিংয়ের সিড়ি নির্মন নিয়ে আইনজীবী ও প্রভাষক সহ দুই পক্ষের ১১ জন আহত হয়েছে। আহতদের শরীয়তপুর সদর হাসপাতাল ও ক্লিনিকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে। (আজ) বুধবার ১১ মে বিকেলে এ ঘটনা ঘটে।

আহতরা হলেন, অ্যাডভোকেট কামরুল হাসান (৫০), গৈড্যা ফাজিল ডিগ্রী মাদরাসার প্রভাষক আব্দুস সালাম ব্যাপারী (৫০), রাজমিস্ত্রী আক্তার হোসেন মহলদার (৪৮), আল আমিন ব্যাপারী (২৫),কৃষক হালিম ব্যাপারী (৫০), রাসেল মোল্লা (২৭) , বোরহান মোল্লা (২৫), আকাশ ব্যাপারীর (২৫) নাম পাওয়া গেছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্র জানায়, অ্যাডভোকেট কামরুলের সঙ্গে প্রভাষক সালামের জমির সিমানা নিয়ে দীর্ঘদিন যাবত বিরোধ চলে আসছে। (আজ) বুধবার সিমানায় কামরুল বিল্ডিংয়ের সিড়ি নির্মান করছিলেন। এসময় সালাম ও তাঁর লোকজন বাধা দিলে দুই পক্ষের লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধে। এসময় দুই পক্ষের ১০জন আহত হয়েছে। আহতদের শরীয়তপুর সদর হাসপাতাল ও ক্লিনিকে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

শরীয়তপুর আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবু সাঈদ বলেন, ঘটনাটি শুনে আহতদের আমি দেখতে গিয়েছি। তাদের সঙ্গে কথা বলেছি। আগামীকাল দুই পক্ষের লোকজন নিয়ে বসে মিমাংসার চেষ্টা করবো।
শরীয়তপুর সদরের পালং মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আক্তার হোসেন বলেন, ওই ঘটনায় এখনো কেউ অভিযোগ নিয়ে আসেননি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হবে।